বেনাপোলে মাদকসহ ২ যুবক আটক

বেনাপোল প্রতিনিধি: বেনাপোল পোর্ট থানা পুলিশ ও বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) সদস্যরা পৃথক অভিযান চালিয়ে হেরোইন, ফেনসিডিল ও ইয়াবাসহ দুই মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে।

রোববার বিকেলে বেনাপোল বন্দর ও পুটখালী গ্রাম থেকে তাদের আটক করা হয়।

তবে আসামি আটক নিয়ে পোর্ট থানা পুলিশের বিরুদ্ধে বাণিজ্যের অভিযোগ উঠেছে।

আটক যুবকদের মধ্যে বেনাপোল পোর্ট থানাধীন ইনতাজ আলীর ছেলে রেজাউল ইসলামকে (৩০) একশ পুরিয়া হেরোইন ও ৪৫টি ইয়াবা ট্যাবলেটসহ পুটখালী থেকে আটক করে বিজিবি সদস্যরা।

টাঙ্গাইল জেলার ভুইয়ারপুর এলাকার আজিজুলের ছেলে রাজিবকে ২০ বোতল ফেনসিডিলসহ পোর্ট থানার সামনে থেকে আটক করে পুলিশ।

বেনাপোল পোর্ট থানার উপ পরিদর্শক আমিরুল ইসলাম দুই যুবক আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, সোমবার দুপুরে তাদের পোর্ট থানা থেকে যশোর আদালতে সোপর্দ করা হবে।

এদিকে পোর্ট থানা পুলিশের বিরুদ্ধে আটক বাণিজ্যের অভিযোগ উঠেছে। মাদকসহ দুই যুবক আটকের খবর শুনে রাত ৮টার দিকে পোর্ট থানায় যান স্থানীয় সাংবাদিকরা।

এসময় ডিউটি অফিসার এ এস আই আমিরুল ইসলামের কাছে আটকের বিষয়ে জানতে চাওয়া হয়। এসময় তিনি ও টেলিফোন অপারেটর আইয়ুব আলী সাংবাদিকদের হিরোইনসহ আটক এক যুবকের কথা স্বীকার করলেও ফেনসিডিলসহ আটক যুবক রাজিবের বিষয়ে মিথ্যা বক্তব্য দেন।

তিনি জানান, তাকে সন্দেহ মুলক ভাবে আটক করা হয়েছে। তার কাছে কিছু পাওয়া যায়নি। একারনে থানার রেজিস্টারে তার নাম এন্ট্রি না হওয়ায় তার ঠিকানা বলা সম্ভব হচ্ছে না।

এ সময় থানার সেলের সামনে গিয়ে আটক মাদক ব্যবসায়ী রাজিবকে ডেকে আটকের কারণ জানতে চাইলে তিনি জানান, তাকে ২০ বোতল ফেনসিডিলসহ বারোপোতা গ্রাম থেকে আটক করেছে পোর্ট থানা পুলিশ।