যশোরে জালিয়াতির অভিযোগে নিকাহ রেজিস্ট্রারের বিরুদ্ধে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক>
যশোর আদালতে মিথ্যা তথ্য উপস্থাপন ও জালিয়াতির অভিযোগে নিকাহ রেজিস্ট্রার মাওলানা আছর আলীর বিরুদ্ধে আদালতে একটি মামলা হয়েছে। সোমবার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ১ম আদালতের বেঞ্চ সহকারি মোজাফফর হোসেন বাদী হয়ে এ মামলা করেছেন। আদালতের বিচারক মো.বুলবুল ইসলাম অভিযোগটি গ্রহন করে আসামির প্রতি সমন জারির আদেশ দিয়েছেন। আছর আলী অভয়নগরের বারান্দী গ্রামের নিকাহ রেজিস্ট্রার।
মামলার অভিযোগে জানা গেছে, সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ১ম আদালতে বিচারাধীন পারিবারিক সহিংসতা প্রতিরোধ আইনের একটি মামলার স্বাক্ষ্য গ্রহন চলছে। মামলার বাদী লকি খাতুন ও আসামি মামুন বিল্লাসহ চারজন। আদালতের বিচারক নিকাহ রেজিস্ট্রারকে আদালতে স্বাক্ষ্য দেয়ার জন্য তলব করেন। নিকাহ রেজিস্ট্রার আছর আলী একটি খোলা তালাকের কপি উপস্থাপন করে। স্বাক্ষ্য গ্রহনকালে খোলা তালাকের ব্যাপারে ব্যাপক আপত্তি তোলেন বাদী। এদিন বিচারক নিকাহ রেজিস্ট্রারকে তালাকের ভলিয়ম আদালতে হাজির করার আদেশ দেন। সোমবার নিকাহ রেজিস্ট্রার ভলিয়ম আদালতে উপস্থাপন করে খোলা তালাকে লাকি খাতুনের স্বাক্ষর বলে জানান। তখন মামলার বাদী লাকি খাতুনের স্বাক্ষর মিলিয়ে জালিয়াতির বিষয়টি ধরা পড়ে। এ সময় বিচারক নিকাহ রেজিস্ট্রার আছর আলীর বিরুদ্ধে বেঞ্চ সহকারিকে এ মামলা করার আদেশ দেন।