মহেশপুরে জাল পরিচয়পত্র করায় তিনজনকে সাজা

নিজস্ব প্রতিবেদক,মহেশপুর>
মহেশপুরে জাল জাতীয় পরিচয়পত্র ও জাল জন্ম নিবন্ধন নিয়ে চৌকিদার পদে নিয়োগের সাক্ষাতকার দিতে আসলে তিনজনকে আটক করা হয়। পরে সহকারী কমশিনার (ভূমি) চৌধুরী রওশর ইসলামের নেতৃত্বে গঠিত ভ্রাম্যমাণ আদালত আটককৃত ৩ জনতে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড দিয়েছেন। ঘটনাটি ঘটে মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিস কক্ষে।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিস সুত্রে জানাগেছে,মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে মহেশপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার অফিস কক্ষে উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়ন, স্বরুপপুর ইউনিয়ন, নেপা ইউনিয়ন, কাজিরবের ইউনিয়ন ও মান্দারবাড়ীয়া ইউনিয়নের জন্য শূন্য পদে ৭ জন চৌকিদার নিয়োগের সাক্ষাতকার দিতে আসেন মহেশপুর উপজেলার কাজিরবেড় ইউনিয়নের জীবননগর পাড়ার মৃত নুর ইসলামের ছেলে মিনারুল ইসলাম, একই ইউনিয়নের ষাটনলপাড়ার রফিকুল ইসলামের ছেলে ওলিউর রহমান ও স্বরুপপুর ইউনিয়নের পোড়াপাড়া গ্রামের আব্দুল কাদেরের ছেলে রবিউল ইসলাম। কিন্তু তাদের জাতীয় পরিচয়পত্র ও জন্ম নিবন্ধন হচ্ছে জাল। এ জন্য তাদেরকে আটক করা হয়।
আটক মিনারুল ইসলাম বলেন, চাকরি পাওয়ার জন্য সামন্তা বাজারের হাসানের কমম্পিউটারের দোকান থেকে আমার বয়স কমিয়ে জাল জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরি করেছি।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশাফুর রহমান জানন, জাল জাতীয় পরিচয় পত্র ও জাল জন্ম নিবন্ধন সদনপত্র নিয়ে চৌকিদার পদে নিয়োগের সাক্ষাতকার দিতে আসলে ৩ জনকে আটকের পর তাদেরকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড দেয়া হয়েছে।