মহেশপুরে ৫ শ্রেষ্ঠ নারী পুরস্কৃত

নিজস্ব প্রতিবেদক, মহেশপুর>
আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস উপলক্ষে জয়িতা অন্বেষণে বাংলাদেশ উপলক্ষ্যে সোমবার সকালে ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার সম্মেলন কক্ষে উপজেলা মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তরের উদ্যোগে এক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সভায় ৫ জন শ্রেষ্ঠ জয়িতা নারীকে সনদ ও ক্রেস্ট দিয়ে পুরস্কৃত করা হয়।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশাফুর রহমানরে সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল হাই। অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন- উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার ড. আব্দুল মালেক গাজী, উপজেলা মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান হাসিনা খাতুন, মহেশপুর মডেল পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জহুরুল ইসলাম, পৌর ল্যাব মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এটিএম খাইরুল আনাম, মহেশপুর পাইলট মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রঞ্জন কুমার মজুমদার প্রমুখ।
পরে ৫ জন শ্রেষ্ঠ জয়িতা নারীকে সনদ ও ক্রেস্ট দিয়ে পুর¯ৃ‹ত করা হয়। ৫ জন নারীর মধ্যে অর্থনৈতিকভাবে সাফল্য অর্জনকারী কাজিরবেড় গ্রামের শারমিন সুলতানা, শিক্ষা ও চাকরির ক্ষেত্রে সাফল্য অর্জনকারী বাথানগাছী গ্রামের রনি খাতুন, সফল জননী নারী জলিলপুর গ্রামের রহিমা বেগম, নির্যাতনের বিভীষিকা মুছে ফেলে নতুন উদ্যমে জীবন শুরু করেছেন যে নারী হানিফপুর গ্রামের আঞ্জুয়ারা বেগম ও সমাজ উন্নয়নে অসামান্য অবদান রেখেছেন যে নারী ভাটপাড়া গ্রামের কোহিনুর বেগম। এর পূর্বে উপজেলা পরিষদ চত্তরে আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস উপলক্ষ্যে ঘন্টাব্যাপি মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। শেষে আন্তর্জাতিক দুর্নীতি বিরোধী দিবস উপলক্ষে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশাফুর রহমানের সভাপতিত্বে আলোচন সভা অনুষ্ঠিত হয়।

মহেশপুরে ৫ ইটভাটা ভেঙে গুড়িয়ে
দিয়েছেন পরিবেশ অধিদপ্তরের
ম্যাজিস্ট্রেট

নিজস্ব প্রতিবেদক, মহেশপুর
অবৈধভাবে টিনের চিমনি দিয়ে ইটের ভাটা তৈরি আর কয়লার পরিবর্তে ভাটা গুলোতে কাঠ পোড়ানোর অপরাধে সোমবার দুপুরে খুলনার পরিবেশ অধিদপ্তরের ম্যাজিস্ট্রেট ইশরাজ জাহান ৫টি ইটের ভাটা ভেঙে গুড়িয়ে দিয়েছেন। এ মসয় মহেশপুর উপজেলার ৭টি ইটের ভাটায় বিভিন্ন অনিয়মের কারনে ৩ লাখ ২৫ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।
পরিবেশ অধিদপ্তরের ম্যাজিস্ট্রেট ইশরাজ জাহান জানান, অবৈধভাবে টিনের চিমনি দিয়ে ইটের ভাটা তৈরি আর কয়লার পরিবর্তে ভাটাগুলোতে কাঠ পোড়ানোর অপরাধে মহেশপুরের পাতিবিলার র‌্যাডো ব্রিকস্,নস্তি গ্রামের শাকিল ব্রিকস্, নেপার মাসুম ব্রিকস, ভাষনপোতার সোবাহান ব্রিকস ও জিন্নহনগরের সোহাগ ব্রিকস্ ভেঙে গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। এছাড়া ৭টি ইটের ভাটা থেকে মোট ৩ লাখ ২৫ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন- উপজেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার (ভূমি) চৌধুরী রওশর ইসলাম, পরিবেশ অধিদপ্তরের যশোরের সহকারী পরিচালক আতাউর রহমান, থানার এএসআই মুরাদ হোসেন ও কোটচাঁপুর ফায়ার সার্ভিসের একটি টিম।