শতবর্ষ উপলক্ষে দেবহাটার টাউনশ্রীপুর শরচ্চন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয় সেজেছে

ইয়াছিন আলী, দেবহাটা >
সাতক্ষীরার দেবহাটা উপজেলা সদরের পাশে টাউনশ্রীপুর একটি ঐতিহ্যবাহী গ্রাম। একসময়ে এই গ্রামে ছিল কয়েকজন জমিদারের বসবাস। এই টাউনশ্রীপুরেই ১৮৬৭ সালে গড়ে উঠেছিল টাউনশ্রীপুর পৌরসভা। বিট্রিশ আমলে নদী পথে যোগাযোগের সহজ মাধ্যমের সুবাদেই এ এলাকায় পৌরসভা তৈরি করা হয়েছিল। এই টাউনশ্রীপুরেই ভারতের সাবেক সেনাপ্রধান শংকর রায় চৌধুরীর পৈত্রিক নিবাস। এর পাশের গ্রাম সুশীলগাতীতে রয়েছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ডা. বিধান চন্দ্র রায়ের জন্মস্থান। টাউনশ্রীপুরের তৎকালীন স্বনামধন্য ও শিক্ষানুরাগী ব্যক্তি অ্যাড. শরচ্চন্দ্র রায় চৌধুরী নিজ উদ্যোগে তাদের নিজস্ব ৫ একর ৯১ শতক জমির উপরে ১৯১৬ সালের ৭ জুলাই প্রতিষ্ঠিত করেন টাউনশ্রীপুর শরচ্চন্দ্র উচ্চ বিদ্যালয়। যেটা হাটি হাটি পা করে শতবর্ষ শেষ হতে চলেছে। ঐতিহ্যবাহী এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে বিগত একশত বছরে হাজার হাজার শিক্ষার্থী পড়াশুনা করেছেন। যারা ইতিমধ্যে দেশে ও দেশের বাইরে অনেক গুরুত্বপূর্ণ স্থানে চাকরিরত আছেন।
বাংলাদেশ সরকারের মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব মো. সলিমুল্লাহ, এনসিসি ব্যাংকের উদ্যোক্তা পরিচালক ও বর্তমানে স্কুলের ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি আলহাজ¦ আবুল কাশেম ও দেবহাটা সদর ইউনিয়নের সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান সমাজসেবক আলহাজ¦ আবুল ফজলসহ আরো কয়েকজন সাবেক শিক্ষার্থীর উদ্যোগে আগামী ২৪ ডিসেম্বর শনিবার উদযাপন করতে যাচ্ছে শতবর্ষ পুর্তি উৎসব। ইতিমধ্যে নাম রেজিষ্ট্রেশনসহ সকল আনুষ্ঠানিকতা প্রায় সম্পন্ন করা হয়েছে। বিদ্যালয়ের প্রধান গেটসহ চারিদিকে বসানো হয়েছে রঙিন আলো। সবদিককে সাজানো হয়েছে বর্ণিল সাজে। অনুষ্ঠান সূচি অনুযায়ী জানা গেছে, ২৪ ডিসেম্বর শনিবার সকাল থেকে ক্রীড়া প্রতিযোগিতা, স্মৃতিচারণ সভা, আলোচনা সভাসহ সন্ধ্যায় সাংষ্কৃতিক অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হবে। সেখানে দেশের স্বনামধন্য শিল্পী নকুল কুমারসহ বহু নামকরা শিল্পীরা সঙ্গীত পরিবশেন করবেন। বর্তমান শতবর্ষ অনুষ্ঠানকে ঘিরে সাজ সাজ বিরাজ করছে।