সাতক্ষীরায় শেখ হাসিনার গাড়িবহরে হামলার প্রধান আসামি গ্রেফতার

বিডিনিউজ >
সাতক্ষীরায় ২০০২ সালে তৎকালীন সংসদে বিরোধী দলীয় নেত্রী শেখ হাসিনার গাড়িবহরে হামলার প্রধান আসামিকে সিরাজগঞ্জে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।
শুক্রবার ভোরে রায়গঞ্জ উপজেলার নলকা ইউনিয়নের পাঁচলিয়া বাজার থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয় বলে র‌্যাবের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়।
গ্রেফতার খালিদ মঞ্জুরুল রোমেল (৩৮) শাহজাদপুর উপজেলার কাদাই বাদলা গ্রামের মৃত এম এ গোফরানের ছেলে। সে সাতক্ষীরার সাবেক সংসদ সদস্য হাবিবের ভাগ্নে। এ ঘটনার সময় পিতার চাকরির সুবাদে তারা কলারোয়ার তুলসিডাঙ্গায় থাকতো। এ ঘটনার পর থেকে পলাতক ছিল রোমেল। পরে তার পিতার মৃত্যুতে পরিবারের সকলে শাহজাদপুর চলে যায়।
র‌্যাব-১২ স্পেশাল কোম্পানির ক্যাম্প কমান্ডার মেজর সাফায়াত আহম্মদ সুমন স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, র‌্যাবের জিজ্ঞাসাবাদে রোমেল ঘটনায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছেন। তার বিরুদ্ধে সাতক্ষীরার কলারোয়া থানায় বিস্ফোরকদ্রব্য আইনসহ একাধিক মামলা রয়েছে। তাকে সলঙ্গা থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, ধর্ষণের শিকার এক মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রীকে দেখতে ২০০২ সালের ৩০ অগাস্ট সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে যান তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেত্রী বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
হাসপাতাল থেকে তাকে দেখে তিনি যশোর যাচ্ছিলেন। তার গাড়ির বহরটি সাতক্ষীরা-যশোর সড়কের কলারোয়ার বিএনপি অফিসের সামনে পৌঁছলে আসামি হাবিবুর রহমানের নির্দেশে অন্যান্য আসামিরা শেখ হাসিনাকে হত্যার উদ্দেশ্যে গাড়িবহরে গুলি ও বোমা হামলা চালায় বলে বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়।
বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, এ সময় তিনি অল্পের জন্য প্রাণে রক্ষা পান। সাবেক এমপি মজিবুর রহমান ও কয়েকজন সাংবাদিক আহত হন।
এ ঘটনায় উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মোসলেম উদ্দীন বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। গ্রেফতার খালিদ মঞ্জুরুল রোমেল ওই মামলার প্রধান আসামি বলে র‌্যাবের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়।