নড়াইল উন্নয়নের সহযোদ্ধা হলেন মাশরাফি

ফরহাদ খান>
নড়াইল উন্নয়নের সহযোদ্ধা হলেন ‘নড়াইল এক্সপ্রেস’ মাশরাফি বিন মর্তুজা। ‘রান ফর নড়াইল’ এর পদযাত্রা অংশগ্রহণের মধ্য দিয়ে এই ক্রিকেট তারকা নড়াইল উন্নয়নের সহযোদ্ধা হলেন। ‘নড়াইল এক্সপ্রেস’ ফাউন্ডেশনের আয়োজনে সোমবার (৪ সেপ্টেম্বর) বিকেলে জেলা শহরে প্রায় তিন কিলোমিটার সড়কজুড়ে ‘রান ফর নড়াইল’ পদযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়। মাশরাফি ছাড়াও এই কর্মসূচীতে অংশগ্রহণ করেন জেলা প্রশাসক এমদাদুল হক চৌধুরী, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সোহরাব হোসেন বিশ^াস, পুলিশ সুপার সরদার রকিবুল ইসলাম, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মনিরুল ইসলাম, পৌর মেয়র জাহাঙ্গীর হোসেন বিশ^াস, বাংলাদেশ অলিম্পিক অ্যাসোসিয়েশনের উপ-মহাসচিব জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান মিকুসহ বিভিন্ন পেশার হাজারো মানুষ। এ সময় ব্যান্ডসহ বিভিন্ন বাদ্যযন্ত্রের ঝংকারে মুখরিত হয়ে উঠে শহর এলাকা।
মাশরাফি বলেন, আমি একা নই; আমরা সবাই মিলে নড়াইলের উন্নয়নে কাজ করবো। পৃথিবীতে কারোর পক্ষে একা কোন উন্নয়ন ঘটানো সম্ভব নয়। এ লক্ষ্যে সবার পাশে থেকে কাজ করতে চাই। দেশের মধ্যে নড়াইল হবে বাসস্থানের অন্যতম উপযোগী স্থান।
এ লক্ষ্যে গত রোববার (৩ সেপ্টেম্বর) অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলন বাংলাদেশ ওয়ানডে ক্রিকেট অধিনায়ক মাশরাফি আরো বলেছেন, সবার সহযোগিতায় নড়াইলের বিভিন্ন উন্নয়নের চেষ্টা করব। ক্রিকেট, টেবিল টেনিস, ভলিবল খেলা এবং চিকিৎসার উন্নয়নসহ শহরে চলাচলরত রিক্সা, ভ্যান, অটোরিক্সা চালকদের বিনামূল্যে পানি পানের ব্যবস্থা ও পরিচ্ছন্ন শহর গড়তে সহযোগিতা করব। জানা যায়, নড়াইল এক্সপ্রেস ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে নড়াইলে উন্নত নাগরিক সুবিধা, বিশেষায়িত শিক্ষা ব্যবস্থা, বিভিন্ন স্কুলে নৈতিকতা ও মানবিক শিক্ষার প্রচলন, বেকারতœ দূর করে কর্মসংস্থান সৃষ্টি করা, সাংস্কৃতিক কর্মকান্ড গতিশীল, খেলাধূলার উন্নয়নে প্রশিক্ষণ, চিত্রা নদীকে ঘিরে পর্যটন এলাকা, শহরকে আইসিটিতে রুপান্তরিত করা এবং বিনোদন বান্ধব শহর করা গড়ে তোলা হবে। এ লক্ষ্যে ‘রান ফর নড়াইল’ পদযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়েছে। পদযাত্রা ছাড়াও সোমবার সন্ধ্যায় জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।