শরণখোলায় একই স্থানে আ.লীগের দু’ পক্ষের সমাবেশ নিয়ে উত্তেজনা, ১৪৪ ধারা জারি

শরণখোলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি>
বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলার খোন্তাকাটা বাজারে ১৪৪ ধারা জারি হয়েছে। শুক্রবার বিকেল ৫ টায় একই স্থানে ডাকা আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের সমাবেশ কেন্দ্র করে পরিস্থিতি উত্তপ্ত হয়ে উঠলে প্রশাসনের পক্ষ থেকে এ আদেশ জারি করা হয়। বর্তমানে বাগেরহাট-৪ আসনের এমপি ডা. মোজাম্মেল হোসেন গ্রুপ ও শরণখোলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি কামালউদ্দিন গ্রুপের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। আইনশৃঙ্খলা নিয়ন্ত্রণে রাখতে ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।
জানা যায়, খোন্তাকাটা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মহিউদ্দিন খাঁনের বাড়িতে গত ২০ সেপ্টেম্বর রাতে দুষ্কৃতকারীরা হামলা চালায়। এঘটনার প্রতিবাদে কামাল গ্রুপ খোন্তাকাটা বাজারের ভ্যান স্ট্যান্ডে প্রতিবাদ সমাবেশ ডাকে।
অপরদিকে, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম-আহবায়ক হাসানুজ্জামান জমাদ্দার ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক আসাদ হাওলাদারসহ কারাবন্দি ৬ নেতার মুক্তির দাবিতে এমপি গ্রুপ ওই বাজারের আনসার-ভিডিপি ক্লাবের সামনে একই সময় প্রতিবাদ সমাবেশের ঘোষণা দেয়। উভয় গ্রুপ পাশাপাশি মাইকিং ও মিছিল করতে থাকে। এতে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। পরে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে প্রশাসনের পক্ষ থেকে ওই বাজারে ১৪৪ ধারা জারি করে উভয় পক্ষের মিছিল-সমাবেশ বন্ধ করে দেয়।
শরণখোলা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আব্দুল জলিল জানান, প্রশাসনকে না জানিয়েই আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপ খোন্তাকাটা বাজারে পাশাপাশি সমাবেশ আহবান করে। এতে উভয় গ্রুপের নেতাকর্মীদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। একপর্যায় আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি অবনতির আশঙ্কা দেখা দিলে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট লিংকন বিশ্বাসের নির্দেশক্রমে সমাবেশ বন্ধ করে এদিন বিকেল ৪টার দিকে ওই স্থানে ১৪৪ ধারা জারি করা হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে রাখতে পার্শ্ববর্তী মোরেলগঞ্জ থানা থেকে অতিরিক্ত পুলিশ আনা হয়েছে। বাজারের বিভিন্ন মোড়ে পুলিশি টহল চলছে।