সেবাইয়োসের জোড়া গোলে রিয়ালের জয়

স্পোর্টস ডেস্ক :প্রথমবারের মতো শুরুর একাদশে সুযোগ পেয়েই জ্বলে উঠলেন দানি সেবাইয়োস। তরুণ এই মিডফিল্ডারের জোড়া গোলে দেপোর্দিভো আলাভেসকে হারিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ।

শনিবার প্রতিপক্ষের মাঠে ম্যাচটি ২-১ গোলে জিতেছে জিনেদিন জিদানের দল। স্বাগতিকদের একমাত্র গোলটি করেন মানু গার্সিয়া।

গত ম্যাচে রিয়াল বেতিসের কাছে ঘরের মাঠে হেরে বসা রিয়াল জয়ে ফেরার ম্যাচে ভাগ্যও পাশে পেয়েছে। স্বাগতিকদের দুটি প্রচেষ্টা পোস্টে বাধা না পেলে ফল অন্যরকমও হতো পারতো। লিগে এখন পর্যন্ত গোলের দেখা না পাওয়া ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর একটি শটও অবশ্য পোস্টে লাগে।

লিগের শুরুতেই পয়েন্ট টেবিলে পিছিয়ে পড়া রিয়াল দশম মিনিটে এগিয়ে যায়। বাঁ থেকে মার্কো আসেনসিওর কাটব্যাকে বল ধরনে সেবাইয়োস। এক ডিফেন্ডার মুখোমুখি ধাক্কা খেলেও বল বিপদমুক্ত করতে পারেননি। বল নিজের নিয়ন্ত্রণে রেখে ডান পায়ের নিচু শটে জালে পাঠান এ মৌসুমেই রিয়ালে আসা স্প্যানিশ এই মিডফিল্ডার।

৪০তম মিনিটে দারুণ এক পাল্টা আক্রমণে সমতায় ফেরে স্বাগতিকরা। ডান দিক থেকে মুনির এল হাদ্দাদির ক্রসে ছুটে এসে জোরালো হেডে গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন স্প্যানিশ মিডফিল্ডার মানু গার্সিয়া।

এবারের আসরে এটাই আলাভেসের প্রথম গোল।

তিন মিনিট পর ফের এগিয়ে যায় অতিথিরা। ডান দিক থেকে আসা ক্রস গোলরক্ষক ফের্নান্দো পাসেকো ঠিকমতো বিপদমুক্ত করতে পারেননি, ফিরতি বল জোরালো নীচু শটে জালে জড়ান ২১ বছর বয়সী সেবাইয়োস।

দ্বিতীয়ার্ধের দ্বিতীয় মিনিটে গোল করার মতো পজিশনে বল পেয়ে লক্ষ্যভ্রষ্ট শট নেন রোনালদো। ৬৩তম মিনিটে তার আরেকটি শট লাগে পোস্টে।

সাত মিনিটের ব্যবধানে ভাগ্যের ফেরে দুবার গোলবঞ্চিত হয় আলাভেস। ৭০তম মিনিটে স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড আলফোনসোর শট ভারানের পায়ে লেগে পোস্টে বাধা পাওয়ার পর নাভাসকে কাটিয়ে পেদরাসার নেওয়া শট লাগে পোস্টে!

মাঝে আট গজ দূরে ফাঁকায় বল পেয়েও উড়িয়ে মারেন সের্হিও রামোস। ৮৪তম মিনিটে রোনালদোর দূরপাল্লার নিচু শট গোলরক্ষক ঝাঁপিয়ে কর্নারের বিনিমিয়ে ঠেকালে ব্যবধান আর বাড়েনি।

ছয় ম্যাচে তিন জয় ও দুই ড্রয়ে রিয়ালের পয়েন্ট ১১।

দিনের প্রথম ম্যাচে সেভিয়াকে ২-০ গোলে হারিয়ে ১৪ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে আতলেতিকো মাদ্রিদ। ১ পয়েন্ট কম নিয়ে তিন নম্বরে নেমে গেছে সেভিয়া।