শিক্ষকরা খুশি, ধন্যবাদ

মিরাজুল কবীর টিটো>
যশোর শিক্ষাবোর্ডভুক্ত ২ হাজার ৯১৩টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে প্রথমবারের মত অভিন্ন প্রশ্নে অনুষ্ঠিত হচ্ছে নবম শ্রেণির বার্ষিক পরীক্ষা। মঙ্গলবার বাংলা ১মপত্র পরীক্ষার মাধ্যমে শুরু হয় এ কার্যক্রম। বোর্ডের সরবরাহকৃত প্রশ্নের মূল্যায়নে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন যশোর শহরের প্রতিষ্ঠান প্রধানরা। সর্ব প্রথম প্রশ্ন ডাউনলোড করে বোর্ড কর্তৃপক্ষের বিশেষ ধন্যবাদ পেয়েছে চুয়াডাঙ্গার এমএ বারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়। শহরের আদর্শ বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক নূরুল আমিন জানান, নির্ধারিত সময়ে প্রশ্নব্যাংক থেকে প্রশ্ন ডাউনলোড করা হয়েছে। সমিতির প্রশ্নে এতদিন যে বিভ্রান্তি ছিল তার অবসান হয়েছে। সৃজনশীল প্রশ্ন যথার্থই সৃজনশীল হয়েছে।
তার মতে, এ প্রশ্ন কোচিং ব্যবসায় ধস নামাবে। নিউটাউন বালিকা বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক আরিফা আক্তার জানান, শিক্ষাবোর্ডের প্রশ্নব্যাংকের প্রশ্নে পরীক্ষা শিক্ষার্থীদের বোর্ড পরীক্ষার প্রস্তুতি হিসেবে সহায়ক হচ্ছে। তিনি ষষ্ঠ থেকে অষ্টম শ্রেণির পরীক্ষাও প্রশ্নব্যাংকের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের দাবি জানান। সম্মিলনী ইন্সটিটিউশনের প্রধান শিক্ষক মিহির কান্তি সরকার, বাহাদুরপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শরিফুল আনাম আজাদ, এমএসটিপি বালিকা বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক খায়রুল আনাম জানান, বার্ষিক পাঠদান পরিকল্পনার আলোকেই প্রশ্ন হয়েছে। যারা পাঠ্য বই ভালোভাবে রপ্ত করেছে তারা ভালো পরীক্ষা দিয়েছে। কোচিংমুখি কিছু শিক্ষার্থী হতাশ হয়েছে।
এ ব্যাপারে শিক্ষাবোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক মাধব চন্দ্র রুদ্র জানান, চেষ্ট করা হয়েছে যাতে শিক্ষকরা প্রশ্নব্যাংক থেকে সহজেই প্রশ্ন ডাউনলোড করে পরীক্ষা গ্রহণ করতে পারেন।
তিনি জানান, প্রতিষ্ঠান প্রধানদের আবেদনের প্রেক্ষিতে সকল প্রতিষ্ঠানকে তালিকাভুক্ত করে ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়েছে।