ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর বর্ণাঢ্য আয়োজন দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের জেলা উপজেলায়

স্পন্দন ডেস্ক>
বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ৭০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত হয়েছে বৃহস্পতিবার বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্যে দিয়ে। দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের জেলা উপজেলাগুলোতে এ উপলক্ষে বের হয় শোভাযাত্রা, নেতা কর্মীরা কাটেন কেক ও আয়োজন করা হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের। যশোরে উল্লিখিত কর্মসূচির সাথে ছিল রাতে বর্ণিল আতশবাজির উৎসব।
বিস্তারিত খবর-
যশোর : আলোচনাসভা,বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা, কেককাটা এবং মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্যদিয়ে বৃহস্পতিবার যশোরে উদযাপিত হয়েছে ছাত্রলীগের ৭০ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী। দুপুরে শহরের প্রানকেন্দ্র দড়াটানা ভৈরব চত্বরে বেলুন এবং কবুতর উড়িয়ে শোভাযাত্রার উদ্বোধন করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন চাকলাদার। জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রওশন ইকবাল শাহীর সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক ও জেলা ছাত্রলীগের সাবেক ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহামুদ হাসান বিপু, জেলা শ্রমিক লীগের সাধারণ সম্পাদক নাছির উদ্দিন, জেলা যুবলীগের সহসভাপতি মেহেদী হাসান, জেলা যুব মহিলালীগের সভাপতি মঞ্জুন্নাহার নাজনীন সোনালী, সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আনোয়ার হোসেন বিপুল, সদর উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক রবিউল ইসলাম, যুগ্ম আহবায়ক তসলিমুজ্জামান আকাশ ও পৌর ছাত্রলীগের আহবায়ক মেহেদী হাসান রনি। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ছালছাবিল আহমেদ জিসান। জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি একেএম খয়রাত হোসেন, কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. মোশারফ হোসেন, জেলা যুবলীগের সভাপতি মোস্তফা ফরিদ আহমেদ চৌধুরী, শ্রমিকলীগের সভাপতি আব্দুল আজিজ, রোকেয়া পারভিন ডলি,সাবেক ছাত্রলীগ নেতা শফিকুল ইসলাম জুয়েলসহ সাবেক ও বর্তমান ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ এসময় উপস্থিত ছিলেন। আলোচনাসভা শেষে শোভাযাত্রা বের হয়। এতে বিপুল সংখ্যক নেতা কর্মী অংশ নেন। সন্ধ্যায় গাড়িখানাস্থ দলীয় কার্যালয়ে কাটা হয় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর কেক এবং উড়ানো হয় ৭০ টি ফানুস। সন্ধ্যায় অনুষ্ঠিত হয় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এসময় আয়োজন করা হয় আতশবাজি উৎসবের। এ আয়োজন শহরবাসীকে মুগ্ধ করে।
মাগুরা : দুপুরে শহরে আনন্দ আনন্দ শোভাযাত্রা বের হয়।সরকারি হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ থেকে বের হয়ে শোভাযাত্রা শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে কলেজে গিয়ে শেষ হয়। জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মীর মেহেদী হাসান রুবেল ও সাধারণ সম্পাদক আলী হোসেন মুক্তার নেতৃত্বে সাবেক নেতৃবৃন্দসহ বিভিন্ন পর্যায়ের কয়েক হাজার নেতা-কর্মী এসময় উপস্থিত ছিলেন। পরে মীর মেহেদী হাসান রুবেলের সভাপতিত্বে কেক কেটে ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে বক্তব্য রাখেন সাবেক ছাত্রলীগ নেতা জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব তানজেল হোসেন খান, আবু নাসির বাবলু, মুন্সী রেজাউল হক ও বর্তমান সদর উপজেলা চেয়ারম্যান রুস্তম আলী।
বাগআঁচড়া : উৎসব মুখর পরিবেশে শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে বাগআঁচড়ায় ছাত্রলীগের ৭০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী নানা আয়োজনে পালিত হয়েছে। শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুর রহিম সরদারের নেতৃত্বে বৃহস্পতিবার সকালে একটি বিশাল শোভাযাত্রা বাগআঁচড়া সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে জিরো পয়েন্টের উম্মুক্ত মঞ্চে পথ সভা অনুষ্ঠিত হয় । পরে নেতা কর্মীদের নিয়ে কেক কাটা হয়। এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের সহ- সভাপতি আকিব জাভেদ শুভ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাসনাইন খুরশেদ মিলন, রিপন হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু রায়হান সোহাগ, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক মেহেদী হাসান শিবলু, স্কুল ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক মনিনুজ্জামান মনির বাগআঁচড়া ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি আহসান হাবিব পল্টু, সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান অপু, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আসলাম সরদার বাপ্পি, সাংগঠনিক সম্পাদক নাজমুল হুসাইন, কায়বা ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মিল্টন হাসান বাগআঁচড়া কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি অহিদ হাসান, সাধারণ সম্পাদক ইমন হুসাইন ছাত্রলীগ নেতা মাকসুদুল আলম সবুজ, সজল ইসলাম, শাওন কবির, সজল সাব্বির প্রমুখ।
মহেশপুর : দুপুরে উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে সরকারী ডিগ্রি কলেজ চত্তর থেকে এক বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের হয়। শোভাযাত্রা শেষে মহেশপুর মাধ্যমিক শিক্ষক সমিতি ভবনে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আমিনুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা ছাত্রলীগের সহ সভাপতি এম এ সাজ্জাদ হোসেন,সাকিব মেহেবুব শাকিল,মিল্টন মিয়া,শেখ নাজিম উদ্দিন,যুগ্ন-সম্পাদক শাওন আলী,নজরুল ইসলাম,রেজাউল ইসলাম,সাংগঠনিক সম্পাদক সুজন পারভেজ,আলী হাসান হাসিব,প্রচার সম্পাদক সেরাজ মারজু,ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক জামাল হোসেন,আজমপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক রানা পারভেজ,সরকারী ডিগ্রী কলেজ ছাত্রলীগের নেতা সবুজ,আশাক,ইয়াছিন আলী,করিম হোসেন,স¤্রাট হোসেন প্রমুখ। পরে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আমিনুর রহমান ছাত্রলীগের নেতা কর্মীদের নিয়ে কেক কাটেন।
লোহাগড়া(নড়াইল) : বিকালে লক্ষীপাশা খেয়াঘাটস্থ যুবলীগের কার্যালয়ে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মুন্সী জোসেফ হোসেনের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান সৈয়দ ফয়জুল আমির লিটু, পৌর মেয়র আশরাফুল আলম,মল্লিকপুর ইউপির চেয়ারম্যান মোস্তফা কামাল,উপজেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক রোমান রায়হান,জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি শেখ ছগির উদ্দিন সনেট, লোহাগড়া কলেজ ছাত্রলীগের সম্পাদক ফয়সাল আহম্মাদ ইমরান,পৌর ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক তারেক হাসান সবুজ, ছাত্রলীগ নেতা সৌরভ হোসেন প্রমুখ । পরে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর কেক কাটা হয়।
ঝিনাইদহ : সকালে সরকারি কেসি কলেজ চত্বর থেকে একটি শোভাযাত্রা বের হয়। শোভাযাত্রা পোস্ট অফিস মোড়ে গিয়ে শেষ হয়। সেখানে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ঝিনাইদহ-১ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুল হাই এমপি, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌরসভার মেয়র আলহাজ সাইদুল করিম মিন্টু, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি শাকিল আহম্মেদ, সাধারণ সম্পাদক রানা হামিদসহ আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা বক্তব্য রাখেন। পরে দিবসটি উপলক্ষে ৭০ পাউন্ড কেক কাটা হয়।
কেশবপুর : ছাত্রলীগের ৪ গ্রুপ আলাদাভাবে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করেছে। সকাল ৮ টায় উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক কাজী আজাহারুল ইসলাম মানিকের নেতৃত্বে উপজেলা ছাত্রলীগ ও পৌর ছাত্রলীগ দলীয় কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন, বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ, কেক কাটা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন যশোর এমএম কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি আবুল কালাম, বিএল কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি ফারুক হোসেন, উপজেলা ছাত্রলীগের হাসান, পৌর ছাত্রলীগের সাইফুল ইসলাম, সোহান প্রমুখ।
সকাল ১০ টায় উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম-আহ্বায়ক খন্দকার আব্দুল আজিজের নেতৃত্বে দলীয় কার্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ, কেক কাটা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ছাত্রলীগনেতা আব্দুল হামিদ, প্রমুখ।
বেলা ১২ টার দিকে উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক হাবিবুর রহমান খান মুকুল ও যুগ্ম-আহ্বায়ক পলাশ মল্লিকের নেতৃত্বে উপজেলা ও পৌর ছাত্রলীগ বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ, বর্ণাঢ্য র‌্যালি, কেক কাটা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। স্থানীয় প্রাথমিক শিক্ষক মিলনায়তনে হাবিবুর রহমান খান মুকুলের সভাপতিত্বে ও যুগ্ম-আহ্বায়ক পলাশ মল্লিকের সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক গৌতম রায়, উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক প্যানেল মেয়র বিশ্বাস শহিদুজ্জামান শহিদ, উপজেলা আওয়ামী লীগনেতা মহব্বত হোসেন, মহিবুর রশিদ, পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাহিনুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক রবিন সাহা সুমন প্রমুখ।
বিকাল ৪ টায় পৌর ছাত্রলীগ নেতা সবুজ হোসেন নিরবের নেতৃত্বে পৌর ছাত্রলীগ দলীয় কার্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণ, কেক কাটা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। পৌর ছাত্রলীগ নেতা সবুজ হোসেন নিরবের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানের অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন উপজেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক মফিজুর রহমান মফিজ, পৌর আওয়ামী লীগের যুগ্ম-আহ্বায়ক পৌর কাউন্সিলর জামাল উদ্দীন সরদার, পৌর ছাত্রলীগ নেতা খন্দকার তুরান প্রমুখ।
ফুলতলা : বিকেলে দলীয় শোভাযাত্রা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা ছাত্রলীগ সভাপতি মঈনুল ইসলাম নয়নের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ শেখ আকরাম হোসেন। ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস কে সাদ্দাম হোসেনের পরিচালনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি বিএমএ সালাম, কৃষি বিষয়ক সম্পাদক আসলাম খান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সরদার শাহাবুদ্দিন জিপ্পী, শেখ রওশন আলী, মৃনাল হাজরা, আবু তাহের রিপন, কামরুজ্জামান নান্নু, বেগম শামসুন্নাহার প্রমুখ। পরে সন্ধ্যায় কেক কেটে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন করা হয়।
বাগেরহাট : সকালে শহরের রেলরোড়স্থ বাদল চত্তরে দলের অস্থায়ী কার্যালয়ে জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন ও বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুস্পমাল্য অর্পন করা হয়। দুপুর ১২টায় রেলরোড থেকে একটি বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের হয়। এসময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বাগেরহাট পৌর মেয়র খান হাবিবুর রহমান, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আক্তারুজ্জামান বাচ্চু, জেলা যুবলীগের আহবায়ক সরদার নাসির উদ্দিন, যুবলীগ নেতা মীর জায়েসী আশরাফী জেমস, ফারুক তালুকদার, জেলা শ্রমিকলীগের সাধারন সম্পাদক খান আবু বক্কর সিদ্দিক, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ বশিরুল ইসলাম, সাধারন সম্পাদক ইবনে মিজান হিরু, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মনির হোসেন, সাধারণ সম্পাদক ওশান সরদার, সহ-সভাপতি রাকিবুল ইসলাম রাজ প্রমুখ। শোভাযাত্রা শেষে ৭০ পাউন্ড কেক কেটে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর কর্মসূচি সম্পন্ন করা হয়।

শরণখোলা : তিন গ্রুপ পৃথকভাবে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ, র‌্যালি, কেক কাটা ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক হাসান মীরের সভাপতিত্বে রায়েন্দা পাইলট হাইস্কুল মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা মো. মোজাম্মেল হোসেন। অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর কবির বাবুল, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান হাসানুজ্জামান পারভেজ, আজমল হোসেন মুক্তা, মুক্তিযোদ্ধা আবু জাফর জব্বার সাখাওয়াত হোসেন, ইউপি চেয়ারম্যান জাকির হোসেন খাঁন মহিউদ্দিন, জালাল আহমেদ রুমি, আসাদুজ্জামান স্বপন, বাদশা আলমগীর আলম, হুমায়ুন করিম সুমন, আল আমিন খাঁন, সাইফুল ইসলাম জীবন, খাইরুল ইসলাম শরীফ প্রমুখ।
অপরদিকে, প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে বিদ্রোহী গ্রুপ শরণখোলা ডিগ্রি কলেজ চত্বরে সাবেক ছাত্রনেতাদের পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক উপ-সম্পাদক ও মালয়েশিয়া আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি জামিল হোসাইন। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন কমিটির আহবায়ক ও জেলা ছাত্রলীগের সদস্য তালুকদার হুমায়ুন কবির সবুজের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান বক্তা ছিলেন উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক আসাদুজ্জামান মিলন। অন্যদের মধ্যে বক্তৃতা করেন আলহাজ্ব সাইফলু ইসলাম খোকন, একেএম হাবিবুর রহমান জমাদ্দার, মেজবাহ উদ্দিন খোকন, আলহাজ্ব রফিকুল ইসলাম কালাম, একরামুল কবির কিচলু, আক্তারুজ্জামান তালুকদার প্রমূখ।
এছাড়া, উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম-আহবায়ক হাচান হাওলাদারের সভাপতিত্বে হোটেল সুন্দবন অবকাশে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ও কেন্দ্রিয় ছাত্রলীগের সদস্য জিয়াউল হাচান তেনজিন। বক্তৃতা করেন, জিয়াউল তালুকদার, আহম্মদ উল্লাহ সানি, তাইজুল ইসলাম মিরাজ, মেহেদী হাসান শাওন, ইমাম তালুকদার, সুমন হোসেন প্রমূখ।
সাতক্ষীরা : শোভাযাত্রা, কেককাটা, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতি অনুষ্ঠানের মধ্যদিয়ে বণার্ঢ্য আয়োজনে অনুষ্ঠিত হয়েছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ৭০তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী। জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি রেজাউল ইসলাম রেজার সভাপতিত্বে প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা মুনসুর আহমেদ। প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর উদ্বোধক হিসেবে বক্তব্য রাখেন ছাত্রলীগ সাতক্ষীরা জেলা শাখার প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি সদর-২ আসনের সংসদ সদস্য মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। সম্মানিত অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন রিফাত আমিন এমপি। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম,জেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবের সভাপতি অধ্যক্ষ আবু আহমেদ, সৈয়দ ফিরোজ কামাল শুভ্র, শেখ সাহিদ উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক ফিরোজ আহমেদ, সাংগঠনিক সম্পাদক ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মো. আসাদুজ্জামান বাবু, কলারোয়া উপজেলা চেয়ারম্যান শেখ ফিরোজ আহম্মেদ স্বপন, তালা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি নুরুল ইসলাম,তালা উপজেলা চেয়ারম্যান ঘোষ সনৎ কুমার, জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদিকা জ্যোৎন্সা আরা। কলারোয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. আমিনুল ইসলাম লাল্টু, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি শেখ মারুফ হাসান মিঠু, সাবেক জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কাজী আক্তার হোসেন, সাবেক সভাপতি শেখ জুয়েল হাসান।
সমগ্র অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ সাদিকুর রহমান সাদিক।
রূপসা : সকালে উপজেলা আওয়ামীলীগ কার্যালয়ের সম্মূখে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান কামাল উদ্দীন বাদশা। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক সরদার আবুল কাশেম ডাবলু, সিনিয়র সহ সভাপতি অধ্যক্ষ আঃসালাম, খুলনা জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি পারভেজ হাওলাদার, উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক মোরশেদুল আলম বাবু, সদর ইউপি চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর শেখ, খুলনা জেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এবিএম কামরুজ্জামান। অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ সভাপতি রুহুল আমিন রবি, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক বিনয় কৃষ্ণ হালদার, দিঘলিয়া উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ফোরকান আহম্মেদ রনি, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগ সাধারণ সম্পাদক রাজিব দাশ টাল্টু, উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম আহবায়কদ্বয় সাদ্দাম হোসেন, হামীম কবীর রুবেল প্রমুখ।
কচুয়া (বাগেরহাট) : উপজেলা ছাত্রলীগের আহবায়ক হাজরা ইসতিয়াক হোসেন বাহাদুর এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান এস.এম মাহফুজুর রহমান। বিশিষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেনস উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার হাজরা দেলোয়ার হোসেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান হাজরা ওবায়দুর রেজা সেলিম,মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাজমা সরোয়ার,আওয়ামীলীগের সিনিয়ার সভাপতি অধ্যক্ষ মোঃ সাইফুর ইসলাম,জেলা পরিষদ সদস্য ও যুবলীগের আহবায়ক সেখ মনিসজ্জামান ঝুমুর, শিকদার ফিরোজ আহম্মেদ,ুযগ্ম আহবায়ক দিহিদার সুজন, শিকদার সুজন,কৃষকলীগের আহবায়ক চেয়ারম্যান শিকদার হাদিউজ্জামান হাদিজ, বিআরডিবির চেয়ারম্যান মীর আওসাফুর রহমান মারুফ।