ঝিকরগাছায় চাঁদার দাবিতে বাড়িতে হামলা ও অপহরণের অভিযোগে আদালতে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক>
যশোরের ঝিকরগাছার রঘুনাথপুর গ্রামে চাঁদার দাবিতে বাড়িতে হামলা করে মারপিট ও এক কিশোরকে অপহরণের অভিযোগে চারজনের নাম উল্লেখসহ অপরিচিত ব্যক্তিদের আসামি করে আদালতে একটি মামলা হয়েছে। বুধবার রঘুনাথপুর গ্রামের ইশা খা বাদী হয়ে এ মামলা করেছেন। সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক মো.বুলবুল ইসলাম অভিযোগটি গ্রহণ করে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের আদেশ দিয়েছেন। আসামিরা হলো রঘুনাথপুর গ্রামের আহাদ আলী ও তার ছেলে গোলাম রসুল, কুন্দিপুর গ্রামের সেলিম হোসেন ও তার ছেলে বারিক হোসেন।
মামলার অভিযোগে জানা গেছে, আসামিরা এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী ও চাঁদাবাজ। ইশা খার সাথে আসামি আহাদ আলীর দীর্ঘদিন ধরে জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। আসামি আহাদ আলী অন্যান্য আসামিদের সহযোগিতায় ইশা খার কাছে ২ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। চাঁদার টাকা দিতে অস্বীকার করায় আসামিরা টাকা আদায়ের ষড়যন্ত্র করছিল। গত ১ জুলাই সকালে আসামিরা ইশা খার বাড়িতে গিয়ে ২ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। টাকা দিতে অস্বীকার করায় বাড়ির লোকজনকে মারপিট ও কিশোর ছেলে ইব্রাহিমকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। এরপর ইব্রাহিমকে তারা তাদের বাড়িতে আটকে রেখে মারপিট করে। পরদিন গ্রামের লোকজনের চাপে ইব্রাহিমকে আহত অবস্থায় আব্দুল মান্নানের বাড়ির সামনে ফেলে রেখে যায়। ইব্রাহিমকে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরবর্তীতে বিষয়টি মীমাংসায় ব্যর্থ হয়ে তিনি আদালতে এ মামলা করেছেন।