চুরি পর্যবেক্ষণে স্থাপন করা সিসি ক্যামেরাই চুরি

নিজস্ব প্রতিবেদক>
সতর্কতা ও দোকানে চুরি পর্যবেক্ষণের জন্য স্থাপন করা হয়েছিল সিসি ক্যামেরা। কিন্তু সেই ক্যামেরা আর তার মেশিন চুরি হয়ে গেছে। একই সাথে ওষুধের দোকান থেকে নগদ ৩০ হাজার টাকাও চুরি করে নিয়ে গেছে অজ্ঞাত চোরচক্র।
ঘটনাটি ঘটেছে গত ২ মার্চ দিবাগত রাতে কোন এক সময় যশোর সদর উপজেলার বসুন্দিয়া মোড়ে এবি ফার্মেসি নামক ওষুধের দোকানে।
দোকান মালিক বাঘারপাড়া উপজেলার আলাদিপুর গ্রামের আবু বক্কার বিশ্বাসের ছেলে হাসান ইমাম জানিয়েছেন, বসুন্দিয়া মোড়ে এবি ফার্মেসি নামে তার একটি ওষুধের দোকান আছে। ২ মার্চ রাত সাড়ে ৯টার দিকে তিনি দোকান বন্ধ করে সিসি ক্যামেরা চালু করে বাড়িতে চলে যান। পরদিন সকালে দোকানের সার্টার খুলে ভেতরে ঢুকে দেখেন দোকানের ক্যাশ বাক্সের তালা ভাঙ্গা। কাগজপত্র ও ওষুধ এলোমেলো অবস্থায় পড়ে আছে। ক্যাশবাক্সের মধ্যে থাকা নগদ ৩০ হাজার টাকা নেই। ৭০ হাজার টাকা মূল্যের সিসি ক্যামেরা ও তার মেশিনও নেই।
পরে তিনি বিষয়টি স্থানীয় লোকজনকে জানিয়ে দেখতে পান, পাশের ডেকোরেটরের দোকানের টিন কেটে অজ্ঞাত চোর দোকানে ঢোকে। এরপর ডেকোরেটরের দোকানের পাশের ইটের প্রাচীর ভেঙ্গে ওষুধের দোকানে ঢুকে চুরি করা হয়। এই ঘটনায় তিনি কোতয়ালি থানায় অভিযোগ দিলে তা মামলা হিসাবে নথিভূক্ত করা হয়।