শহিদুল আলমের মামলার তদন্ত কার্যক্রম স্থগিত

স্পন্দন নিউজ ডেস্ক : আলোকচিত্রী শহিদুল আলমের বিরুদ্ধে করা তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনের মামলার তদন্ত কার্যক্রম তিন মাসের জন্য স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট।

মামলাটির তদন্ত প্রক্রিয়ার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে শহিদুল আলমের করা এক রিট আবেদনের শুনানি নিয়ে আজ বৃহস্পতিবার বিচারপতি শেখ হাসান আরিফ ও বিচারপতি রাজিক আল জলিলের হাইকোর্ট বেঞ্চ রুলসহ এই আদেশ দেন।

আদালতে শহিদুলের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার সারা হোসেন। রাষ্ট্রপক্ষে শুনানি করেন অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম।

নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের মধ্যে গত গতবছরের ৩ ও ৪ আগস্ট রাজধানীর জিগাতলা এলাকায় সংঘর্ষের বিষয়ে কথা বলতে বেশ কয়েকবার ফেইসবুক লাইভে এসেছিলেন শহিদুল। ওই আন্দোলনের বিষয়ে আল জাজিরাকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি সরকারের সমালোচনাও করেন।

এরপরের দিন ৫ আগস্ট রাতে রাজধানীর ধানমন্ডির বাসা থেকে শহিদুল আলমকে তুলে নেয় পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)।

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন হওয়ার পর ৬ আগস্ট পুলিশ তাকে তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭ ধারায় মামলায় গ্রেপ্তার দেখায়। প্রায় সাড়ে তিন মাস কারাগারে থাকার পর গত ২০ নভেম্বর জামিনে মুক্তি পান শহিদুল।

এরপর মামলার তদন্তপ্রক্রিয়ার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে ৩ মার্চ হাইকোর্টে শহিদুল রিটটি করেন। এই রিটের শুনানিতে গতকাল বুধবার আদালত মামলাটির নথি তলব করেন। ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালত থেকে ওই নথি এসে পৌঁছায়। পরে আজ শুনানি নিয়ে আদালত আদেশ দেন।