ইতিহাস-ঐতিহ্যের ধারক যশোর জেলা পরিষদ ভবন ভেঙে ফেলার সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করুন

স্পন্দন নিউজ ডেস্ক :
শতাব্দি কালের ঐতিহ্য যশোর জেলা পরিষদ ভবন ভেঙে ফেলার সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ জানিয়েছেন যশোরের দশজন বিশিষ্ট সাংবাদিক। এক প্রতিবাদ বিবৃতিতে তারা সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের ইতিহাস ঐতিহ্য বিরোধী এ সর্বনাশী সিদ্ধান্ত প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছেন।
বিবৃতিতে সাংবাদিকবৃন্দ উল্লেখ করেছেন, যশোর জেলা পরিষদ ভবনটি যুক্ত বাংলার প্রথম জেলা যশোরের দ্বিতীয় প্রশাসনিক ভবন। আমরা লক্ষ্য করছি যে ‘একে একে নিভিছে দেউটি’ এর মতো যশোরের ঐতিহ্যের ধারক সব স্মারকগুলো নিশ্চিহ্ন হয়ে যাচ্ছে। যার মধ্যে অন্যতম হলো আধুনিক প্রশাসনিক ব্যবস্থা পরিচালনার প্রথম ভবন যশোর জেলা রেজিস্ট্রি অফিসের পরিত্যক্ত ভবন। এই ভবনটি যশোরের প্রথম কালেক্টরেট ভবন। পরবর্তীতে স্থান সংকুলান না হওয়ায় ভবনটি জেলা রেজিস্ট্রি অফিসের জন্য ছেড়ে দিয়ে বর্তমানের ভবনে আসে। এই ভবনটির ঐতিহ্য রক্ষায় সরকারি বেসরকারি কোন পক্ষেরই মাথাব্যথা নেই। সেটি আজ ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে। দ্বিতীয় ভবন হলো জেলা পরিষদ ভবন। স্থানীয় প্রশাসনিক ব্যবস্থা পরিচালনার জন্য ১৯১৩ সালে এই ভবনটি নির্মিত হয়।
যে জাতির ইতিহাস নেই সে জাতি নিঃস্ব। যশোর জেলাবাসী সমৃদ্ধ ইতিহাস ঐতিহ্যের অধিকারী। কিন্তু এসব ইতিহাস ঐতিহ্যের স্মারকগুলো রক্ষার দায়িত্বে যারা তাদের, অজ্ঞতা, অদূরর্শীতা ও স্বার্থপ্রীতির কারণে একে একে ধ্বংস হয়ে যাচ্ছে। ঐতিহ্য রক্ষায় ব্রিটিশরা সচেতন বলেই তারা আজ পৃথিবীতে অগ্রসর জাতি হিসেবে পরিচিত।
জেলা পরিষদ ভবনটি সংস্কারের প্রয়োজন হতে পারে। এ ক্ষেত্রে মূল নকশা অপরিবর্তিত রেখে সংস্কার করে ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে যশোরের ইতিহাস জানার সুযোগ দেয়া উচিত বলে আমরা মনে করি।
বিবৃতিতে স্বাক্ষর করেছেন, প্রেসক্লাব যশোরের সাবেক সভাপতি কল্যাণ সম্পাদক একরাম-উদ-দ্দৌলা, দৈনিক সংবাদ’র বিশেষ প্রতিনিধি রুকুনউদ্দৌলাহ্, প্রেসক্লাব যশোরের সাবেক সভাপতি ইনকিলাব’র বিশেষ প্রতিনিধি মিজানুর রহমান তোতা, প্রবীণ সাংবাদিক শাহাদত হোসেন কাবিল, গ্রামের কাগজ সম্পাদক মবিনুল ইসলাম মবিন, প্রতিদিনের কথা’র ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক দৈনিক ইত্তেফাক’র স্টাফ রিপোর্টার ফারাজী আহমেদ সাঈদ বুলবুল, প্রেসক্লাব যশোর সম্পাদক সমকাল’র স্টাফ রিপোর্টার তৌহিদুর রহমান, যশোর সাংবাদিক ইউনিয়ন জেইউজে সভাপতি জনকণ্ঠ’র স্টাফ রিপোর্টার সাজেদ রহমান, দৈনিক স্পন্দন’র বার্তা সম্পাদক শিকদার খালিদ ও যশোর সাংবাদিক ইউনিয়ন জেইউজে সাধারণ সম্পাদক সমাজের কথা’র বার্তা সম্পাদক হাবিবুর রহমান মিলন।