ঝিনাইদহে দেবরের সঙ্গে পরকিয়া, স্বামীকে খুন

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি::

পরকীয়ার জের ধরে ঝিনাইদহের হরিণাকুণ্ডু উপজেলার কাদিখালী চরপাড়া গ্রামে জয়নুদ্দীন মালিথা (৫০) নামে এক ব্যক্তিকে খুন করেছে স্ত্রী ও তার ছোট ভাই। এমন অভিযোগ প্রতিবেশিদের।

এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী আবেদা খাতুনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ছোট ভাই ছহির উদ্দীন ছইরে পলাতক রয়েছেন। নিহত জয়নুদ্দিন চরপাড়া গ্রামের সবোদ আলী মালিতার ছেলে। সোমবার দুপুরে জয়নুদ্দিন মালিথার লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য ঝিনাইদহ সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ।

প্রতিবেশিরা জানায় জয়নুদ্দিনের স্ত্রী আবেদা খাতুনের সাথে তার ছোট ভাই ছহির উদ্দিনের দীর্ঘদিনের পরকীয়ার সম্পর্ক ছিল। এ কারণেই ভাই এবং স্ত্রী মিলে তাকে হত্যা করেছে।

হরিণাকুণ্ডু থানার ওসি আসাদুজ্জামান জানান, দৌলতপুর ইউনিয়নের খাদিখালী চরপাড়া গ্রামের নিজ ঘরের বারান্দায় রোববার রাতে শুয়ে ছিলেন জয়নুদ্দীন। রাতের কোনো এক সময় তাকে মাথায় আঘাত করে ও কুপিয়ে হত্যা করা হয়। প্রতিবেশিদের সাথে কথা বলে ধারণা করা হচ্ছে স্ত্রী আবেদা খাতুন ও ছোট ভাই ছহির উদ্দিন (ছইরে) মিলে জয়নুদ্দীনকে হত্যা করতে পারে।

এ ঘটনার পর থেকেই ছোট ভাই ছহির উদ্দীন পলাতক রয়েছে। হরিণাকুণ্ডু থানায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে।