যশোরের কুখ্যাত সন্ত্রাসী হাঁস লিটনের নামে মামলা

::নিজস্ব প্রতিবেদক::
দাবিকৃত চাঁদা না পেয়ে যশোর সদর উপজেলার বিরামপুরের কুখ্যাত সন্ত্রাসী লিটন ওরফে হাঁস লিটনের বিরুদ্ধে শরিফুল ইসলাম (৩০) নামে এক রাজমিস্ত্রিকে মারপিটে জখম করার অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় লিটনকে আসামি করে একটি মামলা হয়েছে।

হাঁস লিটন বিরামপুর কালীতলা এলাকার আব্দুল জলিল ড্রাইভারের ছেলে। আর শরিফুল ইসলাম বিরামপুর হঠাৎপাড়ার মৃত আবুল কাশেমের ছেলে।

শরিফুল ইসলামের অভিযোগ, বেশ কিছুদিন ধরে হাঁস লিটন তার কাছে ৫০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে আসছে। কিন্তু তিনি টাকা দিতে অস্বীকার করেন। এতে ক্ষিপ্ত হয় হাঁস লিটন। গত ২৬ জুন সকালে তিনি বিরামপুর হঠাৎপাড়ায় দীপঙ্করের বাড়িতে রাজ মিস্ত্রির কাজ করতে যান। বেলা সাড়ে ১১টার দিকে হাঁস লিটন ও তার বেশ কয়েকজন সঙ্গী সেখানে গিয়ে চাঁদা দাবি করে। তিনি টাকা না দেয়ায় লিটন ও তার সহযোগীরা তাকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে এবং রড দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর জখম করে। সে সময় তার পকেটে থাকা ১ হাজার ৮০০ টাকা ছিনিয়ে নেয় এবং ফের হুমকি দিয়ে চলে যায়।

পরে আশেপাশের লোকজন তাকে উদ্ধার করে যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। তিনি কিছুটা সুস্থ হয়ে কোতয়ালি থানায় গিয়ে হাঁস লিটনসহ অজ্ঞাত ৩/৪ জনের বিরুদ্ধে মামলা করেন।

এ দিকে পুলিশের একটি সূত্র জানিয়েছে, হাঁস লিটনের বিরুদ্ধে হত্যা, চাঁদাবাজি, বিস্ফোরক, মাদক, মারামারিসহ এক ডজন মামলা আছে।