ইবির ডেপুটি রেজিস্ট্রার নওয়াব আলী খানের পিএইচডি ডিগ্রী অর্জন

প্রেসবিজ্ঞপ্তি>
ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ডেপুটি রেজিস্ট্রার (প্রশাসন) ও এপিএ ফোকাল পয়েন্ট মোঃ নওয়াব আলী খান বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদের হিসাবজ্ঞিান ও তথ্য পদ্ধতি বিভাগ হতে পিএইচডি ডিগ্রী অর্জন করেছেন। ২৫ জুন অনুষ্ঠিত একাডেমিক কাউন্সিলের ১১৬তম সভার সুপারিশ ও সিন্ডিকেটের ২৪৫তম সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক ১ জুলাই পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক অফিস স্মারক-২০১৯/০২-এর বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে তার পিএইচডি ডিগ্রী অর্জনের বিষয়টি বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক প্রকাশ করা হয়।
ডিগ্রীর শিরোনাম ছিল “R0LE OF NGOsINPOVERTY ALLEVIATIONOF BANGLADESH: A  CASE STUDY ON BRAC ”.. ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০০৯-২০১০ ইং শিক্ষাবর্ষে তার গবেষণা তত্ত্বাবধায়ক জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ম্যানেজমেন্ট বিভাগের অধ্যাপক ড. এ কে এম মনিরুজ্জামান। এর আগে তিনি একই বিভাগ ও তত্ত্বাবধায়ক এর অধীন ২০০৮ সালে এমফিল ডিগ্রী অর্জন করেন। খান হিসাববিজ্ঞানে ১৯৯০ সালে স্নাতক সম্মান ও ১৯৯২ সালে স্নাতকোত্তর ডিগ্রী অর্জন করেন।
খান প্রায় দুই যুগ ধরে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত আছেন। এরমধ্যে ৪ বছর পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার হিসেবে দায়িত্বরত ছিলেন। বিভিন্ন পাবলিক বিশ্বদ্যিালয়ের শিক্ষক-কর্মকর্তা-কর্মচারীদের অফিস ম্যানেজমেন্টসহ আনুসঙ্গিক বিধিবিধান সম্মন্ধে প্রশিক্ষণ প্রোগ্রামে তিনি রিসোর্স পারসন হিসেবে কাজ করেন।
খান ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা উপজেলার কুশবাড়িয়া গ্রামের খানপরিবারে মরহুম সুরত আলী খান ও হাজিরন নেসার কনিষ্ঠ পুত্র। তিনি দশক এর বেশি সময় কুষ্টিয়ায় বসবাস করেন। তার স্ত্রী সেলিনা আক্তার ইবির কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত। দুই সন্তানের জনক খানের কন্যা সাইকা নওরিন সেওতি বিডিএস এবং পুত্র রাফিদ খান নবম শ্রেণির শিক্ষার্থী। অত্যন্ত মেধাবী ও কর্মচঞ্চল ড. খান তিনি সকলের দোয়া ও শুভাশীষ প্রার্থী।