ভাইকে না পেয়ে যশোরে বাকপ্রতিবন্ধীকে ছুরিকাঘাত

:: নিজস্ব প্রতিবেদক ::
যশোরে শাহানুর রহমান (১৮) নামে এক বাকপ্রতিবন্ধীকে ছুরিকাঘাতে জখম করা হয়েছে। অভিযোগ উঠেছে মাদকদ্রব্য কেনাবেচাতে ভাই বাঁধা দেয়ার চার মাদক বিক্রেতা ওই প্রতিবন্ধীকে রোববার রাতে শহরের নীলগঞ্জ ব্রিজের উপরে ছুরিকাঘাত করে ব্রিজের নিচে ফেলে দেয়।

আহত শাহানুর রহমান ঝুমঝুমপুর বালিয়াডাঙ্গা আদর্শপাড়ার মশিয়ার রহমানের ছেলে। অভিযুক্ত চারজন হলো, একই এলাকার বাহার, রুবেল, জুয়েল ও তালেব।

এ সময় দুর্বৃত্তরা শাহানুরের কাছে থাকা প্রতিবন্ধী ভাতার চার হাজার টাকা ছিনতাই করে নেয়। আহত শাহানুর যশোর যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

আহতের ভাই আবু বক্কার বলেন, বালিয়াডাঙা আদর্শ পাড়ায় বাহার, রুবেল, জুয়েল ও তালেব এলাকায় গাঁজা ও ইয়াবা বিক্রি করে। আমি তাদের মাদক বিক্রিতে বাধা দেয়ায় ওই মাদক ব্যাবসায়ীরা আমাকে জীবন নাশের ও দেখে নেয়ার হুমকি দেয়। রোববার রাতে তার ভাই শাহানুর শহর থেকে বাড়ি ফিরছিল। তাকে না পেয়ে ওই চারজন তার ভাইকে এলোপাতাড়ি মারপিট করে এবং মাথার পেছনের অংশে ছুরিকাঘাত করে নীলগঞ্জ ব্রিজের নিচে ফেলে দেয়। এ সময় ভাইয়ের পকেটে থাকা প্রতিবন্ধী ভাতার চার হাজার টাকাও ছিনিয়ে নেয় দুর্বৃত্তরা। সংবাদ পেয়ে নীলগঞ্জ ব্রিজের নিচ থেকে শাহানুরকে উদ্ধার করে যশোর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

হাসপাতালের সার্জারি ওয়ার্ডের চিকিৎসক ওহিদুল ইসলাম ইমন জানান, রোগিকে চাপা আঘাত করা হয়েছে। মাথার পেছনের অংশে ধারাল অস্ত্র দিয়ে আঘাত করা হয়েছে। তবে সে শংকামুক্ত।

এ ঘটনায় এখনো থানা পুলিশের কাছে অভিযোগ দেয়া হয়নি বলে জানিয়েছেন কোতয়ালি থানার ওসি মনিরুজ্জামান।