চুড়ামনকাটিতে মেয়েকে উত্ত্যক্তে মামলা করায় মুক্তিযোদ্ধাকে ফাঁসানোর অভিযোগ

:: নিজস্ব প্রতিবেদক ::
যশোর সদর উপজেলার চুড়ামনকাটিতে কলেজ পড়ুয়া মেয়েকে উত্ত্যক্তের প্রতিবাদে মামলা করায় বাদী মুক্তিযোদ্ধা নিজাম উদ্দিনকে একটি মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ উঠেছে। মুক্তিযোদ্ধার অভিযোগ, ওই মামলার আসামি রাসেল হোসেনের বাবা জাহাঙ্গীর আলম তার পছন্দের একজনকে বাদী করে তার বিরুদ্ধে প্রতারণা মামলা দায়ের করিয়েছেন।
সোমবার রাতে পুলিশ হঠাৎ তাকে আটকের পর তিনি বিষয়টি নিয়ে হতবাক হয়ে যান।

এদিন বিকেলে আদালত থেকে জামিন নিয়ে বের হয়ে নিজাম উদ্দিন জানান, তিনি চুড়ামনকাটি বাজারের রেলস্টেশন রোডের বাসিন্দা। তার মেয়ে যশোর সরকারি মহিলা কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী। কলেজে যাতায়াতের পথে দীর্ঘদিন ধরে মেয়েকে নানাভাবে উত্ত্যক্ত করে আসছিলো জাহাঙ্গীর আলমের ছেলে রাসেল। জোর করে মোবাইল ফোনে ছবি তোলারও চেষ্টা চালাতো মাঝে মাঝে। কয়েকদিন আগে গোপনে রাসেলকে সতর্ক করা হয় তার মেয়েকে উত্ত্যক্ত না করার জন্য। এতে নিজাম উদ্দিনের ওপর ক্ষুব্ধ হয় রাসেল। ৮ জুলাই সকালে বাজার থেকে সবজি কিনে বাড়ি ফিরছিলেন। এ সময় রাসেল তাকে দেখে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে। কোনো কিছু বুঝে ওঠার আগেই রাসেল হামলা চালিয়ে নিজাম উদ্দিনকে মারপিটে জখম করে। এই ঘটনায় তিনি রাসেলকে আসামি করে যশোর কোতোয়ালি মডেল থানায় মামলা করেন।

নিজাম উদ্দিন আরো জানান, মামলা করার পর থেকে রাসেল পক্ষীয়রা তার ওপর নানাভাবে ক্ষুব্ধ হয়। মামলাটি মীমাংসা করার জন্য তাকে চাপ সৃষ্টি করে। এজন্য স্থানীয় প্রভাবশালীদের তারা ব্যবহার করে। কিন্তু তিনি মামলা নিষ্পত্তি করবেন বলে সিদ্ধান্তে অটল থাকেন। এরপর থেকে তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র শুরু হয়। শেষ পর্যন্ত তাকে মামলায় ফাঁসিয়ে দেয়া হয়েছে।

নিজাম উদ্দিন আরো জানান, সোমবার রাতে তিনি নিজবাড়িতে ঘুমিয়ে ছিলেন। এ সময় কোতোয়ালি থানা পুলিশ তাকে ডেকে তোলে। এরপর তাকে আটক করে থানায় আনেন। সকালে তাকে আদালতে চালান দেয়া হয়। যে মামলায় তাকে আসামি করা হয়েছে এই ঘটনা সম্পর্কে তিনি কিছুই জানেন না। তার দায়ের করা মামলার আসামি রাসেলের পিতা জাহাঙ্গীর ক্ষুব্ধ হয়ে উজ্জল হোসেন নামে বাদী করে তাকে মামলায় ফাঁসিয়ে দিয়েছে। তাদের উদ্দেশ্য হলো রাসেলের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলাটি যেনো আমি মীমাংসা করে নিই। আমাকে শায়েস্তা করার জন্য তারা এই মিথ্যা মামলার জন্ম দিয়েছে।

এ বিষয়ে কোতোয়ালি মডেল থানার এসআই মতিয়ার রহমান জানান, খুলনার আদালতে দায়েরকৃত একটি প্রতারণা মামলায় মুক্তিযোদ্ধা নিজাম উদ্দিনকে সোমবার রাতে আটক করে আদালতে প্রেরণ করা হয়। তিনি মামলার বিস্তারিত জানাতে পারেননি। নিজাম উদ্দিনের দায়ের করা মামলার আসামি রাসেলের পিতা

জাহাঙ্গীর আলম জানান, মুক্তিযোদ্ধা নিজামকে তিনি কেনো মামলায় ফাঁসাবেন। বরং বিগত দিনে নিজাম উদ্দিন আমার ছেলেকে মিথ্যা মামলায় আসামি করেছে। নিজাম উদ্দিনের বিরুদ্ধে কে মামলা করেছে তা আমার জানা নেই। প্রতারণা মামলায় আটক হওয়ার পর তিনি তাদের বিরুদ্ধে মিথ্যাচার করছেন।