প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ

অভিযুক্ত প্রধান শিক্ষক মিজানুর রহমান

:: নিজস্ব প্রতিবেদক ::
পঞ্চম শ্রেণিীতে পড়ুয়া এক ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে যশোরের বাঘারপাড়ায় এক প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। বৃহস্পতিবার ওই ছাত্রীর বাবা বাদী হয়ে বাঘারপাড়া থানায় মামলাটি করেন।

অভিযুক্ত মিজানুর রহমান বরভাগ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এবং উপজেলা সদর সংলগ্ন দোহাকুলা গ্রামের নূর আলী মোল্যার ছেলে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, প্রধান শিক্ষক মিজানুর রহমান (৫০) বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির ওই ছাত্রীকে গত বুধবার স্কুল ছুটির পর তার অফিসে কক্ষে দেখা করতে বলেন। মেয়েটি অফিস কক্ষে যাওয়ার পর মিজানুর রহমান তাকে জড়িয়ে ধরেন। এক পর্যায়ে ধর্ষণের চেষ্টা চালান। মেয়েটি চিৎকার দিলে আশপাশের লোকজন বিদ্যালয়ে আসলে মিজানুর রহমান তাকে ছেড়ে দেন। এরপর মিজানুর রহমান মোটরসাইকেলযোগে সেখান থেকে সটকে পড়েন। পরদিন মেয়েটির বাবা বাঘারপাড়া থানায় মামলা দায়ের করেন।

বাঘারপাড়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শেখ ওহিদুজ্জামান বলেন, ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে বরভাগ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মিজানুর রহমানের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। আসামি পলাতক রয়েছে। তাকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

উল্লেখ্য, এর আগে মিজানুর রহমান আগ-দোহাকুলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের দ্বায়িত্বে ছিলেন। সেখানেও একই ঘটনা ঘটানোর অভিযোগ রয়েছে। এ নিয়ে মামলাও হয়। মামলার কারণে মিজানুর রহমান চাকরি থেকে বহিষ্কার হন। পরে বাদী পক্ষ মামলা প্রত্যাহার করলে তিনি পুনরায় চাকরি ফিরে পান।