বসুন্দিয়া পুলিশ ক্যাম্পে নিজ অস্ত্রে আনসার সদস্যের আত্মহত্যা

:: নিজস্ব প্রতিবেদক ::
যশোরের বসুন্দিয়া পুলিশ ক্যাম্পে নিজ অস্ত্র দিয়ে গুলি করে মকদুম আলী (৫১) নামে এক আনসার সদস্য আত্মহত্যা করেছেন। বৃহস্পতিবার ভোরে ফজরের নামাজের পর এ ঘটনা ঘটান তিনি। পারিবারিক অশান্তির কারণে তিনি আত্মহত্যা করেছেন বলে পুলিশ জানিয়েছে।

মকদুম আলী টাঙ্গাইলের ভুয়াপুর উপজেলার বিলঅমুলা গ্রামের মৃত হযরত আলীর ছেলে। তিনি যশোরের নাভারণ আনসার ব্যাটালিয়নের সদস্য (নম্বর-২৬১১৯)।

যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) সালাউদ্দিন সিকদার জানিয়েছেন, মকদুম আলী দীর্ঘদিন ধরে পারিবারিক কলহ নিয়ে অশান্তিতে ছিলেন। দেড় মাস আগে তিনি বসুন্দিয়া ক্যাম্পে যোগদান করেছিলেন। ফোনে তিনি পরিবারের সদস্যদের সাথে গোলযোগ করতেন। প্রায় সময় উচ্চস্বরে তার পরিবারের সদস্যদের সাথে কথা বলতেন। গত বুধবার রাতে ক্যাম্পের পাশে মসজিদের ভেতরেও ফোনে পরিবারের সদস্যদের সাথে বেশ উচ্চস্বরে কথা বলেন। মসজিদের মুসল্লিরা তা দেখেছেন।

বৃহস্পতিবার ভোরে ফজরের নামাজ শেষে ক্যাম্পে ফিরে নিজের চাইনিজ রাইফেল দিয়ে মুখের নিচে (থুতনিতে) ঠেকিয়ে গুলি করেন। গুলিতে তার মুখমন্ডল ছিন্নভিন্ন হয়ে যায়। সংবাদ পেয়ে পুলিশ সুপার মঈনুল হক ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এছাড়া যশোর আনসার ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং অফিসার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। নিহতের পরিবারের সদস্যদের তার মৃত্যুর খবর জানানো হয়েছে।

তিনি আরো জানান, নিহতের মরদেহ যশোর জেনারেল হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে এবং ময়না তদন্ত শেষে লাশ তার পরিবারকে দেয়া হবে।