বঙ্গবন্ধুকে হত্যাকারী ফারুক-রশিদের ফ্রিডম পার্টির লোকজনদেরও বিচার করতে হবে

:: নিজস্ব প্রতিবেদক ::

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪ তম শাহাদাৎ বার্ষিকী ’জাতীয় শোক দিবস’ স্মরণে শুক্রবারও যশোরের বিভিন্ন স্থানে পালিত হয়েছে কর্মসূচি। কর্মসূচির মধ্যেছিল, আলোচনাসভা, দোয়া মাহফিল, খাবার বিতরণ এবং মাইকে ৭ মার্চের বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ভাষণ প্রচার।

পৌরসভার মোল্যাপাড়া, নাথ পাড়া, বারান্দিপাড়া বটতলা, বেজপাড়া টিবি ক্লিনিক মোড়, গুড়গুল্লার মোড়, ঘোপ নওয়াপাড়া জামে মসজিদ মোড়, সেন্ট্রাল রোড, পালবাড়ি মোড়, সদর উপজেলার লেবুতলা বাজার, কাশিমপুর মাধ্যমিক বিদ্যালয় মাঠসহ বিভিন্নস্থানে কর্মসূচিতে জেলা আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতৃবৃন্দ বক্তব্য রাখেন এবং খাবার বিতরণ কর্মসূচি উদ্বোধন করেন।

এ সময় নেতৃবৃন্দ বলেছেন, বিদেশে পালিয়ে থাকা বঙ্গবন্ধুর খুনিদের দেশে ফিরিয়ে এনে বিচারের রায় কার্যকর করতে হবে। সেই সাথে ইনডেমনিটি সংস্কৃতি লালনকারীদের খুঁজে বের করে তাদেরও বিচার করতে হবে। নেতৃবৃন্দ বলেন সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী আমাদের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হত্যাকারী ফারুক-রশিদদের নেতৃত্বে যারা ফ্রিডম পার্টি করেছে তারাও অপরাধী। তাদেরও বিচারের আওতায় আনতে হবে।

সদর আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন, সাধারণ সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন চাকলাদার, যুগ্মসাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য অ্যাড. মনিরুল ইসলাম মনির, জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি এসএম কামরুজ্জামান চুন্নু, একেএম খয়রাত হোসেন, কৃষি সম্পাদক মোশারফ হোসেন, ফারুক আহমেদ কচি, কাজী আব্দুস সবুর হেলাল, জেলা যুবলীগের সভাপতি মোস্তফা ফরিদ আহমেদ চৌধুরী, মহিলা আওয়ামী লীগের সভানেত্রী নূর জাহান ইসলাম নিরা, যুব মহিলালীগের সভাপতি মঞ্জুন্নাহার নাজনীন সোনালীসহ আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের শীর্ষনেতৃবৃন্দ এসব কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন।

নেতৃবৃন্দ এ সময় আরো বলেন, বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধারণ করেই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দুর্নীতিমুক্ত দেশ গড়তে সকলকে এক হয়ে কাজ করতে হবে। নেতৃবৃন্দ বলেন, কোনো বাধা বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা ঠেকিয়ে রাখতে পারবে না।

খাজুরা (যশোর) প্রতিনিধি জানান, যশোর সদর উপজেলার লেবুতলা ও কাশিমপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আয়োজনে পৃথক জাতীয় শোক দিবসের কর্মসূচি পালন করা হয়েছে। কর্মসূচির মধ্যে বিকেল ৪টায় যশোর-মাগুরা মহাসড়ক সংলগ্ন তেঁতুল বাজারে লেবুতলা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আয়োজনে ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদতবার্ষিকী উপলক্ষে দোয়া ও শোকসভা অনুষ্ঠিত হয়।

ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান মাস্টার বাহাউদ্দিন হোসেনের সভাপতিত্বে শোক সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল ইসলাম মিলন। লেবুতলা ইউপি চেয়ারম্যান আলিমুজ্জামান মিলনের উপস্থাপনায় প্রধান বক্তা ছিলেন যশোর-৩ আসনের সংসদ সদস্য কাজী নাবিল আহমেদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্মসম্পাদক ও যশোর-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য এ্যাড: মনিরুল ইসলাম মনির, সদর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান মিন্টু। বক্তব্য রাখেন দলের জেলা কমিটির শ্রম বিষয়ক সম্পাদক কাজী আব্দুস সবুর হেলাল, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক ফারুক আহম্মেদ কচি, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক বাবু সুকেন্দ্রনাথ, ক্রীড়া সম্পাদক এ্যাড: আবু সেলিম রানা, উপ-দপ্তর সম্পাদক ওহিদুল ইসলাম তরফদার, জেলা যুবলীগের সভাপতি মোস্তফা ফরিদ আহম্মেদ চৌধুরী, যুব মহিলা লীগের সভাপতি মঞ্জুন্নাহার নাজনীন সোনালী।

এর আগে বিকেল ৩টায় সদরের কাশিমপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের আয়োজেন স্থানীয় কাশিমপুর হাইস্কুল মাঠে দোয়া মাহফিল ও শোকসভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি সাইদুর রহমানের সভাপতিত্বে প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন যশোর-৩ আসনের সাংসদ কাজী নাবিল আহমেদ।