মোবাইলে কথা বলতে বলতে গলায় ফাঁস দিল ফুলতলার কলেজছাত্রী

:: ফুলতলা প্রতিনিধি ::

মেধাবী কলেজ ছাত্রী উম্মে রুবাইয়া ঐশী (১৮) গলায় ওড়নার ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে। ঘটনাটি ঘটেছে বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে ফুলতলার ধোপাখোলা স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্র সংলগ্ন এলাকায়। সে ধোপাখোলা গ্রামের বাসিন্দা ও বিমান বাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত সদস্য ফারুক হোসেন মোল্যার কন্যা এবং আকিজ আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজের বিজ্ঞান বিভাগের ২য় বর্ষের ছাত্রী।

পারিবারিক সূত্র জানায়, বৃহস্পতিবার রাত আনুমানিক সাড়ে ৯টার দিকে ঐশী তার পড়ার ঘরে বসে কানে ইয়ারফোন দিয়ে কথা বলছিল। পরপরই তার মা দেখে সিলিং ফ্যানের সাথে গলায় ওড়নার ফাঁস লাগিয়ে ঐশী ঝুলছে। প্রতিবেশীরা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্ত শেষে শুক্রবার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করে। বিকেলে তার দাফন সম্পন্ন হয়। এ ব্যাপারে থানায় অপমৃত্য মামলা হয়েছে।

ঐশী গত ২০১৮ সালে জামিরা বাজার আসমোতিয়া স্কুল এন্ড কলেজ থেকে জিপিএ-৫ পেয়ে এসএসসি পাস করে ওই প্রতিষ্ঠানে ভর্তি হলেও পরবর্তীতে টিসি নিয়ে আকিজ আইডিয়াল স্কুল এন্ড কলেজে ভর্তি হয়। তবে মোবাইলে কথা বলতে বলতে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করায় কোনো বখাটে ছেলের সাথে প্রেমজ সম্পর্কের জেরে অভিমানে এমন ঘটনা ঘটাতে পারে বলে এলাকাবাসির ধারণা।

ওসি মনিরুল ইসলাম জানান, তার ব্যবহৃত মোবাইল জব্দ করা হয়েছে। ফোনের কল মনিটরিং এর মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যাবে।