তৃতীয়বারের মত গিনেজ বুকে মাগুরার ফয়সাল

::এস আলম তুহিন, মাগুরা::

মাগুরার ফ্রি স্টাইলার ফুটবলার মাহমুদুল হাসান ফয়সাল আবারও গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে নাম লেখালেন। বাস্কেটবলের একটি ইভেন্টে তিনি তৃতীয় বারের মতো বিশ্বরেকর্ড গড়লেন। চলতি বছরের শুরুতে ৬০ সেকেন্ডে দুই হাতের মধ্যে ১৪৪ বার বাস্কেটবল ঘুরিয়ে তিনি দ্বিতীয় বার রেকর্ড গড়েন।

২০১৮ সালের শেষ দিকে এক মিনিটে দুই হাতের মধ্যে ১৩৪ বার ফুটবল ঘুরিয়ে তিনি প্রথমবারের মতো গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে নাম লেখান।

ফয়সাল জানান, তিনি একাধিক ইভেন্ট সফলভাবে সম্পন্ন করে তার ভিডিও রেকর্ডসহ তথ্যপ্রমাণাদি গিনেস ওয়ার্ল্ড কর্তৃপক্ষের কাছে জমা দেন। এর মধ্যে এ বছরের ৩ মে করা এক মিনিটে ৩৪ বার বাস্কেটবল মিচ থ্রো অ্যান্ড ক্যাচ ইভেন্টটির স্বীকৃতি দিয়েছে গিনেস কর্তৃপক্ষ। এর আগের রেকর্ডটি ছিল এক মিনিটে ২৭ বার।

গত বৃহস্পতিবার রাতে গিনেস ওয়ার্ল্ড কর্তৃপক্ষ আনুষ্ঠানিকভাবে ফয়সালের তৃতীয় এ রেকর্ডের স্বীকৃতি দিয়েছে বলে তিনি জানান।

মাগুরা সদর উপজেলার হাজিপুর গ্রামের বাসিন্দা অবসরপ্রাপ্ত সেনা সদস্য সোহেল রানার ছেলে ১৭ বছর বয়সী ফয়সাল মাগুরা পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের মেকাট্রোনিক্স বিভাগের চতুর্থ বর্ষের ছাত্র। ফয়সালের ইচ্ছা আগামীতে আরও নতুন নতুন রেকর্ড গড়ার পাশাপাশি আন্তর্জাতিক ফ্রিস্টাইলার ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপে অংশ নিয়ে বাংলাদেশের মুখ বিশ্বের দরবারে আরও উঁচুতে তুলে ধরা। এ জন্য তিনি কঠোর অনুশীলন চালিয়ে যাচ্ছেন।

ফয়সাল জানান, ছোটবেলা থেকেই তার ঝোঁক ছিল খেলাধুলার প্রতি। ইচ্ছা ছিল ভালো ফুটবলার অথবা ক্রিকেটার হওয়ার। এজন্য তিনি চেষ্টায়ও চালিয়েছেন। তবে তাতে কাক্সিক্ষত সফলতা আসেনি। ক্রীড়ার মাধ্যমে ব্যতিক্রম কিছু করার ইচ্ছা থেকেই তার ফ্রিস্টাইলার ফুটবলার হওয়ার চিন্তা মাথায় আসে।

এজন্য তিনি ২০১৭ সাল থেকে বাড়ির আঙিনা ও স্থানীয় মাঠে ফুটবল নিয়ে নানা কলাকৌশল আয়ত্তে আনার জন্য অনুশীলন শুরু করেন। দিনে ১২ থেকে ১৪ ঘণ্টা কঠোর অনুশীলন ও দৃঢ় মনোবলকে কাজে লাগিয়ে মাত্র এক বছরের মাথায় ২০১৮ সালের আগস্টে তিনি সাফল্য পেয়ে যান। মাত্র ৬০ সেকেন্ডে ১৩৪ বার ফুটবল আর্মরোলিং করে গিনেস ওয়ার্ল্ডে প্রথমবারের মতো নাম লেখাতে সক্ষম হন।

আগে এক মিনিটে ১২৭ বার বল ঘুরিয়ে এ রেকর্ডের মালিক ছিলেন এক রুশ খেলোয়াড়। এরপর তিনি বাস্কেটবল আর্মরোলিংয়ের অনুশীলন শুরু করেন। তিনি ইংল্যান্ডের এক খেলোয়াড়ের এক মিনিটে ১২১ বারের রেকর্ড ভেঙে একই সময়ে দুই হাতের মধ্যে ১৪৪ বার বাস্কেটবল ঘুরিয়ে দ্বিতীয় বারের মতো গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে নাম লেখান।

একের পর এক সাফল্যে অনুপ্রাণিত হয়ে নতুন রেকর্ড গড়ার জন্য বর্তমানে ফুটবল নিয়ে নানা অনুশীলন চালিয়ে যাচ্ছেন তিনি। এ অনুশীলনের ফলে এখন তিনি ফুটবল আয়ত্তে নিয়ে নানা ধরনের শারীরিক কসরত দেখাতে পারদর্শী হয়ে উঠেছেন। শুধু নতুন রেকর্ড গড়াই নয়, ভবিষ্যতে তিনি সব ধরনের ফ্রিস্টাইল ফুটবলে দক্ষতা গড়ে খেলোয়াড় হওয়ার স্বপ্ন দেখছেন। ইচ্ছা পোষণ করেছেন, আন্তর্জাতিক ফ্রিস্টাইল ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপে অংশ নিয়ে দেশের জন্য সাফল্য বয়ে আনবেন। এ লক্ষ্যে তিনি কঠোর অনুশীলন চালিয়ে যাচ্ছেন।

এ কাজে তাকে ওয়ালটন পৃষ্ঠপোষকতা করেছে। তবে আগামীতে নিরবচ্ছিন্ন অনুশীলন চালিয়ে যাওয়ার জন্য বড় ধরনের পৃষ্ঠপোষকতা প্রয়োজন। এ লক্ষ্যে তিনি সরকারের ক্রীড়া মন্ত্রণালয় বা ক্রীড়া অধিদপ্তরের সহযোগিতা কামনা করেছেন।

দুই ভাইবোনের মধ্যে ফয়সাল ছোট। একমাত্র বড় বোনের বিয়ে হয়ে গেছে। মা-বাবা ঢাকায় বসবাস করেন। অবসরপ্রাপ্ত সেনা সদস্য বাবা বর্তমানে ঢাকায় একটি প্রাইভেট কোম্পানিতে চাকরি করেন। গ্রামের বাড়িতে তিনি একাই বসবাস করেন।