আ.লীগ নেতার স্ত্রী ও কন্যা ধর্ষণ: ইউপি চেয়ারম্যানের ফাঁসির দাবি

::সাতক্ষীরা প্রতিনিধি::

সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলা ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতির স্ত্রী ও কন্যা ধর্ষণে অভিযুক্ত আনুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আলমঙ্গীর আলম লিটন, শওকত, আলম ও কালামের গ্রেফতার ও ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন হয়েছে।

মঙ্গলবার সাতক্ষীরা জজ কোর্টের সামনে এ মানববন্ধন ও প্রতিবাদ কর্মসূচি পালিত হয়। আশাশুনি উপজেলা সর্বস্তরের জনগণের ব্যানারে ফাঁসির দাবিতে এ কর্মসূচি পালন করে এলাকাবাসী।

এ সময় বক্তব্য রাখেন আনুলিয়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ফারুকুজ্জামান ফারুখ, ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি আজমির হোসেন, রফিক, ছাত্তার, কবির ফতেমা প্রমুখ।
এ সময় বক্তরা বলেন আনুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আলমঙ্গীর আলম লিটনের সন্ত্রাসী বাহিনীর সদস্য আলম, কামাল, শওকতের অত্যাচারে এলাকার মানুষ অতিষ্ঠ।

সন্ত্রাসীরা গত ১৫ আগস্ট ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতির স্ত্রী ও কন্যাকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ ও পাষবিক নির্যাতন চালায়। পরে রাতে আনুলিয়া দারুল উলুম দাখিল মাদ্রাসার পাশে ফেলে রেখে যায়। তাদেরকে এলাকাবাসী উদ্ধার করে আশাশুনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে।

এ ঘটনায় থানায় ৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা হলেও আশাশুনি থানা পুলিশ ইউপি চেয়ারম্যান লিটন, আলম, কামাল, শওকতকে এখনো গ্রেফতার করেনি। মানববন্ধন থেকে তাদের গ্রেফতার ও ফাঁসির দাবি জানানো হয়।

মানববন্ধন শেষে সংখ্যালঘু নির্যাতন, খাস জমি দখল, চাঁদা দাবি সহ বিভিন্ন অপকর্মের বিভিন্ন ঘটনা উল্লেখ করে এলাকাবাসী আনুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আলমঙ্গীর আলম লিটন, কামাল, আলম, শওকতের গলায় ফাঁসির ছবি সম্বলিত একটি লিফলেট বিতরণ করেন।

এ ব্যাপারে আনুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আলমঙ্গীর আলম লিটনের বক্তব্য নেয়ার জন্য তার ব্যবহৃত ০১৭১১০৪৭২৭৫ মোবাইল নাম্বারসহ তার সাথে বিভিন্ন মাধ্যাম দিয়ে বার বার যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।