৬ ছাত্রকে টিসি দেয়ার প্রতিবাদে কপিলমুনিতে অর্ধশত শিক্ষার্থীর অনশন

কপিলমুনি প্রতিনিধি:
খুলনার কপিলমুনির পার্শ্ববর্তী হরিঢালী ইউনিয়ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৬ ছাত্রকে টিসি দেয়ায় কপিলমুনি প্রেসক্লাবে প্রায় অর্ধশত শিক্ষার্থী প্রতিকার চেয়ে অনশন করছে।
জানা যায়, নানা অনিয়ম দুর্নীতি ও খামখেয়ালীপনার জন্য হরিঢালী ইউনিয়ন মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক স্বপন কুমার বিশ্বাসের বিরুদ্ধে শিক্ষার্থীদের মধ্যে অসন্তোষ দানা বাঁধে। দীর্ঘদিন এ অসন্তোষ চলতে থাকলে ২৮ আগস্ট সকালে শিক্ষার্থীরা ক্লাস বর্জন করে প্রধান শিক্ষকের অপসরনের দাবিতে স্কুল ক্যাম্পাসে বিক্ষোভ মিছিল করে নতুন নির্মিত গেটে নামফলক ভাঙচুর করে।
খবর পেয়ে পাইকগাছা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এমদাদুল হক শেখ সরেজমিনে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।
বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় কপিলমুনি প্রেসক্লাবে গিয়ে অনশন করেন শিক্ষার্থীরা।
এ সময় তারা বলেন, ‘হরিঢালী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের নানা অনিয়মের প্রতিবাদে আন্দোলন করার কারণে ৬ শিক্ষার্থীকে ডাকযোগে টিসি প্রদান করা হয়েছে। যা আমাদের পড়ালেখার ক্ষেত্রে অন্তরায়। এটা আমাদের বিরুদ্ধে নিছক ষড়যন্ত্র ছাড়া কিছুই না।’
এক শিক্ষার্থীর অভিভাবক ময়না বেগম জানান, ‘ছাত্র ভর্তির সময় আমাদের বাড়ি গিয়ে অনুরোধ করে আমাদের সন্তানদের এনে ভর্তি করা হয়। কিন্তু টিসি দেয়ার সময় আমাদের মোটেও জানানো হয়নি। যেটা সম্পূর্ণ অন্যায়। আমরা টিসি প্রত্যাহার দাবি করছি।’
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক স্বপন বিশ্বাস বলেন, ‘পাইকগাছা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জুলিয়া সুকায়নার নির্দেশে ৬ জনকে টিসি দিয়েছি।’