যশোরে মা-মেয়েকে জখম করে ছিনতাইয়ের অভিযোগ

::নিজস্ব প্রতিবেদক::

যশোরে মা-মেয়েকে জখম করে সোনার গহনা ও টাকা ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। সোমবার রাতে শহরের পুরতান কসবা বিমান অফিস মোড়ে এ ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন, ওয়াবদা পাড়ার মৃত হানিফ মিয়ার স্ত্রী জীবনা বেগম (৪২) ও মেয়ে বৃষ্টি খাতুন (২৩)। তাদের যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহত জীবনা বেগম জানান, ছোট মেয়ে মুনিয়া আক্তারকে শহরে ডাক্তার দেখিয়ে রাত সাড়ে ১০ টার দিকে তারা রিকশাযোগে বাড়ি ফিরছিলেন। এ সময় সিটি কলেজ পাড়ার ড্রাইভার সেলিম পাটয়ারির ছেলে বিল্লাল পাটয়ারিসহ আরো কয়েকজন তাদের রিকশার গতিরোধ করেন।

এ সময় দুর্বৃত্তরা প্রথমে জীবনা বেগমকে জখম করে সোনার গহনা ছিনিয়ে নেয়। পরে তার বড় মেয়ে বৃষ্টিকে অপহরণ করে নিয়ে যায়।

রাত পৌনে ১১ টার দিকে বৃষ্টির চোখের বাঁধন খুলে দেয়া হয়। বৃষ্টি খাতুন জানান, রাত সাড়ে ১১ টায় বিল্লালের নেতৃত্বে খালধার রোড এলাকার দুলালের ছেলে আল-আমিনসহ অজ্ঞাত ছয়-সাত জন তার কাছে থাকা এক লাখ ছেচল্লিশ হাজার টাকার সোনার অলংকার ও কাছে থাকা ১৯ হাজার টাকা ছিনিয়ে নিয়ে মারধর করে অজ্ঞান অবস্থায় রাস্তার পাশে ফেলে রেখে যায়।

পরে রাত ১২ টার দিকে বৃষ্টির জ্ঞান ফিরলে তার চিৎকারে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করে। এ ঘটনায় থানায় মামলা করবেন বলে জানান।