অপরাধের ৮দিনের মধ্যে মেডিকেল সার্টিফিকেট দেয়ার নির্দেশ

মাগুরা প্রতিনিধি :
বিচার কাজ দ্রুত ও সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করতে অপরাধের ৩ দিনের মধ্যে মেডিকেল সার্টিফিকেটের আবেদন ও এর ৫ দিনের মধ্যে পুলিশকে মেডিকেল সার্টিফিকেট দেয়ার নির্দেশ দিয়েছেন মাগুরা জেলা ও দায়রা জজ মোঃ কামরুল হাসান। একই সঙ্গে মামলার রায় প্রদানের সময় নিষ্পত্তি আদেশে আলামত বিষয়ক একটি নির্দেশনা সংযুক্ত রাখার জন্য সংশ্লিষ্ট বিচারকদের নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।
শনিবার দুপুরে জেলা জজ আদালতের সম্মেলনকক্ষে অনুষ্ঠিত জেলা জজশিপ আয়োজিত পুলিশ-ম্যাজিস্ট্রেসি কনফারেন্স-২০১৯ এ প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ নির্দেশনা দেন তিনি। মাগুরার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ জিয়াউর রহমান এর সভাপতিত্বে কনফারেন্সে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন মাগুরার পুলিশ সুপার খান মোহাম্মদ রেজওয়ান, সিভিল সার্জন প্রদীপ কুমার সাহা, ২৫০ শয্যার হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক স্বপন কুমার কুন্ডু, জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মাহাবুবা জেসমিন, সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট হাসিবুল হোসেন, বুলবুল ইসলাম, পিপি অ্যাড. কামাল হোসেন, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাড. এসকেন্দার আজম বাবলু, সাধারণ সম্পাদক সাজেদুর রহমান সংগ্রাম, সদর থানার ওসি সাইফুল ইসলাম, মহম্মদপুর থানার ওসি তারক বিশ্বাস, শ্রীপুর থানার ওসি মাহবুবুর রহমান, সিআইডি ইন্সপেক্টর বসির উদ্দিনসহ অন্যরা।
প্রধান অতিথি বক্তব্যে নালিশি মামলায় শিশুদের জড়ানোর ক্ষেত্রে বিশেষ সচেতনতা, মাদক মামলার ক্ষেত্রে আসামিদের নাম, ঠিকানা, বয়স, অপরাধের ধরণ, উদ্ধারকৃত মাদকের সঠিক পরিমাণ ও রং উল্লেখ করে মামলা গ্রহণ করতে তদন্তকারী কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেন।
এ সময় বক্তারা-মামলা রজ্জুর ক্ষেত্রে ডাক্তারি সনদকে অগ্রাধিকার দেয়া, ময়না তদন্তের প্রতিবেদন ১৫দিনের মধ্যে দাখিল, গ্রেফতারি পরোয়ানা দ্রুত কার্যকর, সাক্ষী হাজির ও স্বাক্ষ্য গ্রহণ নিশ্চিত করা, ধর্ষণের মামলার ক্ষেত্রে ধর্ষণ হয়েছে কিনা সেটিকে মুখ্য হিসেবে দেখা, মামলার কার্যক্রম শুরু হওয়ার সাথে সাথে এ সংক্রান্ত তদন্তকারি পুলিশ কর্মকর্তার কার্যবিবরণী (সিডি) এজাহারের সাথে সংযুক্ত করা প্রভৃতি বিষয় নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেন।