ডিসেম্বরের শেষভাগে শৈত্যপ্রবাহের পূর্বাভাস

নিজস্ব প্রতিবেদক : পঞ্জিকার পাতায় শীত আসছে ডিসেম্বরের মাঝামাঝি সময়ে; আর মাসের শেষভাগে দেশের বিস্তীর্ণ অঞ্চলে মৌসুমের প্রথম শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে বলে আভাস দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

এ মাসে বঙ্গোপসাগরে একটি লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে এবং সেটি পরে নিম্নচাপের রূপ নিতে পারে বলে আবহাওয়া অধিদপ্তরের পরিচালক সামছুদ্দিন আহমেদ জানিয়েছেন।

ডিসেম্বর মাসের আবহাওয়ার দীর্ঘমেয়াদী পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, মাসের শেষার্ধে দেশের উত্তর, উত্তর পূর্বাঞ্চল ও মধ্যাঞ্চলে এক থেকে দুটি মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।

টানা তিন দিন তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াস বা কম থাকলে শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে বলে ধরা হয়। থার্মোমিটারের পারদ ৮ থেকে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে হলে তাকে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বলে।

তাপমাত্রা ৬ থেকে ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে হলে তাকে বলা হয় মাঝারি শৈত্যপ্রবাহ।আর পারদ ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসেরনিচে নেমে গেলে তীব্র শৈত্যপ্রবাহ চলছে বলে ধরা হয়।

রোববার দিনের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ছিল টেকনাফে ৩১ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আর রাতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ছিল কুড়িগ্রামের রাজারহাটে ১২ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

সামছুদ্দিন আহমেদ বলেন, ডিসেম্বরের প্রথমার্ধে রাতের তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি থাকতে পারে। তবে মাসের শেষার্ধে রাতের তাপমাত্রা স্বাভাবিকের চেয়ে কমতে পারে।

শেষ রাত থেকে সকাল পর্যন্ত দেশের উত্তরাঞ্চল ও নদ-নদী অববাহিকায় ঘন থেকে মাঝারি মাত্রার কুয়াশা দেখা যেতে পারে।