না ফেরার দেশে জাগরণী চক্র ফাউন্ডেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা হাসিব নেওয়াজ

নিজস্ব প্রতিবেদক:
বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থা জাগরণী চক্র ফাউন্ডেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা সাংবাদিক মহলে সুপরিচিত মিষ্টভাষী হাসিব নেওয়াজ আর নেই। বৃহম্পতিবার হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে ইন্তেকাল করেন তিনি (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫৫ বছর। ওইদিন আনুমানিক সকাল ৭ টা ২০ মিনিটে যশোরের উপশহর এফ ব্লকস্থ ভাড়া বাসায় হৃদরোগে আক্রান্ত হন। পরে যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে নিলে ৭টা ৪০মিনিটে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এর আগেও তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েছিলেন। পরে তার জীবনযাপন ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী নিয়ন্ত্রিত ছিল।
মৃত মো. ইনজাহার আলীর ছেলে হাসিব নেওয়াজ ঝিনাইদহ জেলার মহেশপুর উপজেলার খালিশপুর গ্রামে ১৯৬৪ সালে জন্মগ্রহণ করেন। মৃত্যুর আগে নিঃসন্তান হাসিব নেওয়াজ-স্ত্রী, ২ ভাই ও ৫ বোন রেখে গেছেন।
সকালে তার মৃত্যুর খবর শুনে বাসভবনে ছুটে যান জাগরণী চক্র ফাউন্ডেশনে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও কর্মী, সাংবাদিক, স্থানীয় গণ্যমান্যব্যক্তিবর্গ ও শুভানুধ্যায়ীরা।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা বিভাগ থেকে স্নাতকোত্তর করা হাসিব নেওয়াজ ২০০২ সালে প্রোগ্রাম রিপোর্টার হিসেবে জাগরণী চক্র ফাউন্ডেশনে যোগদান করেন। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত তিনি সংস্থায় জনসংযোগ কর্মকর্তা পদে প্রধান কার্যালয়ে কর্মরত ছিলেন।
সকাল সাড়ে ১০টায় উপশহর মারকাজ মসজিদে প্রথম জানাজা শেষে হাসিব নেওয়াজের মরদেহ তার কর্মস্থল মুজিব সড়কস্থ জাগরণী চক্র ফাউন্ডেশনের প্রধান কার্যালয় চত্বরে আনা হয়। সেখানে তার সহকর্মীবৃন্দ শেষ শ্রদ্ধা জানান। এছাড়া সুরধনী, জয়তী সোসাইটি, যশোর সাহিত্য পরিষদ, চাঁদেরহাট, ককাস, প্রতিদিনের কথা পরিবারসহ বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনের পক্ষ থেকে মরহুমের প্রতি শেষ শ্রদ্ধা জানানো হয়।
যশোরে দীর্ঘদিন কাজ করার সুবাদে স্থানীয় সাংবাদিকদের সঙ্গে মিষ্টভাষী হাসিব নওয়াজের সুসম্পর্ক তৈরি হয়। এছাড়া যশোর ইনস্টিটিটিউটের আজীবন সদস্য, যশোর সাহিত্য পরিষদের সদস্য, শিল্পকলা একাডেমি যশোরের সদস্য, উদীচী যশোরের সদস্য, ফিল্ম সোসাইটি যশোরের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি, কোকাসের সভাপতিসহ বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠনেও সক্রিয় ছিলেন।
মৃত্যুর আগে হাসিব নেওয়াজ তার দেহ দান করে গেছেন খুলনা মেডিকেল কলেজে। আর চোখ দান করেছেন ইসলামীয়া চক্ষু হাসপাতাল ঢাকাতে। বর্তমানে তার মৃতদেহ খুলনা মেডিকেল কলেজে হস্তান্তরের জন্য নেয়া হয়েছে।
হাসিব নেওয়াজের মৃত্যুতে গভীর শোকপ্রকাশ করেছেন প্রেসক্লাব যশোরের সভাপতি জাহিদ হাসান টুকুন ও সম্পাদক আহসান কবীর।
প্রেসক্লাব নেতৃবৃন্দ এক যুক্ত বিবৃতিতে মরহুমের আত্মার শান্তি ও তার পরিবারের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
তাঁর মৃত্যুতে গভীর শোকপ্রকাশ করেছে যশোর সাংবাদিক ইউনিয়ন (জেইউজে)।
এক শোক বার্তায় যশোর সাংবাদিক ইউনিয়নের (জেইউজে) সভাপতি সাজেদ রহমান, সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান মিলন, সহসভাপতি প্রণব দাস, যুগ্মসম্পাদক রেজাউল করিম রুবেল, কোষাধ্যক্ষ মারুফ কবীর, জেইউজে নির্বাহী সদস্য শফিক সায়ীদ ও জিয়াউল হক তার রুহের মাগফেরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
পৃথক বিবৃতিতে গভীর শোকপ্রকাশ করেছেন বিএফইউজে-বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের সহসভাপতি মনোতোষ বসু, যুগ্ম মহাসচিব সাকিরুল কবীর রিটন, সদস্য নূর ইমাম বাবুল ও গোপীনাথ দাস।
এক শোক বার্তায় সাংবাদিক ইউনিয়ন যশোরের সভাপতি শহিদ জয় ও সাধারণ সম্পাদক আকরামুজ্জামান মরহুমের বিদেহি আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন। একই সাথে নেতৃবৃন্দ মরহুম হাসিব নেওয়াজের শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জানান।
তার মৃত্যুতে গভীর শোকপ্রকাশ করেছে নিউজ নেটওয়ার্ক ও বাংলাদেশ হিউম্যান রাইটস ডিফেন্ডার্স ফোরাম (ককাস)।
এক শোক বার্তায় নিউজ নেটওয়ার্কের সম্পাদক ও প্রধান নির্বাহী মো. শহিদুজ্জামান, প্রধান সমন্বয়কারী রেজাউল করিম তার রুহের মাগফেরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।
পৃথক বিবৃতিতে গভীর শোকপ্রকাশ করেছেন বাংলাদেশ হিউম্যান রাইটস ডিফেন্ডার্স ফোরাম (ককাস) কেন্দ্রীয় সভাপতি মোশফেকা রাজ্জাক, সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রহমান মিলন, যশোর জেলা শাখার সহ-সভাপতি জামাল উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক ইন্দ্রজিৎ রায়।