টাকা আত্মসাৎ মামলায় বাঘারপাড়ার অরুণ কারাগারে

 

নিজস্ব প্রতিবেদক, বাঘারপাড়া: বিদেশে পাঠানোর নামে টাকা আত্মসাতের মামলায় অরুণ অধিকারীকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছে আদালত। সোমবার তিনি আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করলে শুনানি শেষে অতিরিক্ত চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে বিচারক মুহাম্মদ আকরাম হোসেন জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন। অরুণ অধিকারী বাঘারপাড়ার বাসুয়াড়ী গ্রামের মৃত কৃষ্ণপদ অধিকারীর ছেলে।

সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার বোয়ালিয়া গ্রামের খোকন অধিকারীর ছেলে রবিন অধিকারীকে জাপানে পাঠানোর নাম করে পাঁচ লক্ষ টাকা নেন একই গ্রামের অরুণ অধিকারী। ২০০৬ সালের ১ জানুয়ারি স্ট্যাম্পে চুক্তি করে অরুন অধিকারী ওই টাকা গ্রহণ করেছিলেন। টাকা নেওয়ার পর থেকে তিনি নানা টালবাহানা করতে থাকেন। নানা অজুহাত দেখিয়ে পার করেন দীর্ঘ ১৩ বছর। এক পর্যায়ে অরুন অধিকারী টাকা লেনদেনের বিষয়টি অস্বীকার করেন। নিরুপায় হয়ে রবিন অধিকারী ২০১৯ সালের ১৬ জুলাই প্রতারণার অভিযোগে যশোর আদালতে মামলা করেন। সোমবার মামলার ধার্য দিনে অরুন অধিকারী আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করেন। আদালতের বিচারক আসামির জামিন আবেদনের শুনানি শেষে নামঞ্জুর করে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন। এ খবর বাঘারপাড়ায় ছড়িয়ে পড়লে ভুক্তভোগী অনেকেই মুখ খুলতে শুরু করেছেন। বেরিয়ে আসছে অরুন অধিকারির অসংখ্য প্রতারণার খবর।