ক্রিকেট খেলা নিয়ে চিতলমারীতে অভিভাবককে খুন

 

চিতলমারী (বাগেরহাট) প্রতিনিধি : বাগেরহাটের চিতলমারী উপজেলায় ক্রিকেট খেলা নিয়ে দ্বন্দ্বে প্রতিপক্ষের হামলায় বিপুল শেখ (৪৫) নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। বুধবার গভীর রাতে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বিপুল শেখের মৃত্যু হয়। বুধবার রাত আটটার দিকে চিতলমারী উপজেলার বড়বাড়িয়া ইউনিয়নের পরাণপুর গ্রামে এই হামলার ঘটনা ঘটে।

বৃহস্পতিবার সকালে নিহতের ময়না তদন্ত খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে সম্পন্ন হয়েছে। তবে পুলিশ এই ঘটনায় জড়িত কাউকে এখনো গ্রেপ্তার করতে পারেনি। নিহত বিপুল শেখ চিতলমারী উপজেলার বড়বাড়িয়া ইউনিয়নের পরাণপুর  গ্রামের বাসিন্দা।

চিতলমারী থানার ওসি মীর শরীফুল হক জানান, বুধবার সকালে চিতলমারী উপজেলার বড়বাড়িয়া ইউনিয়নের পরাণপুর গ্রামের মাঠে স্থানীয় কয়েকজন শিশুর মধ্যে ক্রিকেট খেলা নিয়ে দ্বন্দ্ব হয়। পরে শিশুদের অভিভাবকদের হস্তক্ষেপে শিশুদের ওই দ্বন্দ্বের মীমাংসা হয়। ওই দ্বন্দ্বের জেরে রাত আটটার দিকে এক অভিভাবকের বাবা বিপুল শেখের সাথে অন্য অভিভাবকদের পুনরায় বাগবিতণ্ডা হয়। বাগবিতণ্ডার একপর্যায়ে ওই অভিভাবকদের মধ্যে কারও হাতে থাকা লোহার রড দিয়ে বিপুল শেখের মাথায় আঘাত করে। এতে তিনি রক্তাক্ত জখম হন।

পরে তাকে আশংকাজনক অবস্থায় স্থানীয়রা উদ্ধার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত সাড়ে ১২টার দিকে তার মৃত্যু হয়। বৃহস্পতিবার সকালে নিহতের ময়না তদন্ত খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে সম্পন্ন হয়েছে। হামলার ঘটনায় জড়িতদের ধরার চেষ্টা চলছে।