চৌগাছা মডেল হাসপাতালে অস্ত্রোপচার বন্ধ

বিল্লাল হোসেন : যশোরের চৌগাছা মডেল হাসপাতালে অস্ত্রোপচার কার্যক্রম বন্ধ হয়ে গেছে। দেশসেরা এই হাসপাতালের চিকিৎসক ও সেবিকারা একের পর এক কোভিড-১৯  নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার কারণেই বাধ্য হয়ে অস্ত্রোপচার বন্ধ রাখা হয়েছে। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা.লুৎফুন্নাহার লাকি জানিয়েছেন, বিষয়টি উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। ডেপুটেশনে অজ্ঞানের চিকিৎসক এনে অস্ত্রোপচার কার্যক্রম চালু করার বিষয়টি ভাবনায় রয়েছে।

হাসপাতালের প্রশাসনিক সূত্রে জানা গেছে, এ হাসপাতালে মোট ৪ জন চিকিসক ও ৩ জন সেবিকা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। ৪ জন চিকিৎসকের মধ্যে ১ জন আবাসিক মেডিকেল অফিসার , ১ জন অজ্ঞান বিভাগে দায়িত্বরত চিকিৎসক ও বাকি ২ জন মেডিকেল অফিসার। একপ্রকার চিকিৎসকের অভাবে অস্ত্রোপচার কার্যক্রম বন্ধ হয়ে গেছে। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা.লুৎফুন্নাহার লাকি জানান, হাসপাতালে দায়িত্বরত ১৯ চিকিৎসকের মধ্যে ৪ জন  ও ২৫ জন সেবিকার মধ্যে ৩ জন করোনায় আক্রান্ত হওয়ায় চিকিৎসাসেবা প্রদানে অন্য চিকিৎসক সেবিকাদের বেগ পেতে হচ্ছে। তারপরেও রয়েছে করোনা আতঙ্ক। সবমিলিয়ে চিকিৎসক সেবিকারা রোগীদের চিকিৎসাসেবা প্রদান করছে। কিন্তু অজ্ঞানের চিকিৎসকের অভাবে ২ দিন অপারেশন বন্ধ রাখা হয়েছে।  চিকিৎসক সেবিকাদের সাহস যোগাতে তিনিও চিকিৎসাসেবার কাজে রয়েছেন।

যশোরের সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহীন জানান, একাধিক চিকিৎসক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার কারণে অস্ত্রোপচার কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে বলে শুনেছি। অন্য উপজেলা থেকে অজ্ঞানের চিকিৎসক দিয়ে চৌগাছা হাসপাতালের অস্ত্রোপচার চালু করা হবে। অতি শীঘ্রই সমস্যার সমাধান হয়ে যাবে বলে আশা প্রকাশ করেন সিভিল সার্জন।