‘চুল নিজে কেটে অন্যের ঘাড়ে দোষ চাপাচ্ছে রওশনারা’

নিজস্ব প্রতিবেদক : বাড়িভাড়ার পাওনা টাকা চাওয়ায় রওশনারা নিজের মাথার চুল কেটে মিথ্যা দোষারোপ করছেন বলে অভিযোগ করেছেন করুনা বেগম নামে এক নারী। বুধবার প্রেসক্লাব যশোরে অনুষ্ঠিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন। করুনা বেগম যশোর শহরের চাঁচড়া রায়পাড়া এলাকার বাসিন্দা। এ সময় উপস্থিত ছিলেন চাঁচড়া রায়পাড়া এলাকার রেশমা হিজড়া, আনিচুর রহমান রানা, সুমি বেগম, সাথী বেগম  প্রমুখ।

সংবাদ সম্মেলনে করুনা বেগম বলেন, রওশানারা আমার বাড়িতে দীর্ঘদিন ভাড়া ছিলেন। তার কাছে ঘরভাড়ার ১৭ হাজার টাকা এবং ধার নেয়া ৫ হাজার টাকা পেতাম। এই টাকা না দিয়ে রওশনারা বাড়ি ছেড়ে অন্য বাড়িতে চলে যান।  এরপর টাকা চাইলে সে নানা তালবাহানা করতে থকে।  একপর্যায়ে আমাকে  শায়েস্তা করতে এবং পাওনা টাকা না দেয়ার জন্য রওশানারা নিজের মাথার চুল কেটে আমাকে দোষারুপ করছে। এ ঘটনায় পুলিশের কাছেও অভিযোগ হয়েছিলো। কিন্তু পরে পুলিশের তদন্তে মিথ্যা প্রমাণিত হওয়ায় তার বিরুদ্ধে দেয়া অভিযোগ তুলে নিতে বাধ্য হয়েছিলেন রওশনারা।

তিনি বলেন, আমার বিরুদ্ধে রওশনারা বিভিন্নস্থানে মিথ্যা অভিযোগ করে চলেছেন। আমি এর বিচার চাই।

উল্লেখ্য, এর আগে ৫ মে রওশনারা প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করেন। এ সময় তিনি করুনা বেগমের বিরুদ্ধে চুল কেটে নেয়ার অভিযোগ করেছিলেন।