যশোরে ৯২ নমুনা পরীক্ষায় পজেটিভ ৬

বিল্লাল হোসেন : ২৪ ঘণ্টায় যশোরে ৯২ জনের নমুনা পরীক্ষা করে  ৬ জনের কোভিড-১৯ নভেল করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছেন। এরমধ্যে ৩ জন নতুন রোগী রয়েছেন। বাকি ৩ জনের ফলোআপ পজেটিভ এসেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন যশোরের সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহীন। তিনি জানান, নতুন ৩ জনের মধ্যে চৌগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ১ জন সেবিকা , কেশবপুরর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ১ জন সেবিকা ও অভয়নগর উপজেলার ১ জন সাধারণ রোগী রয়েছেন। এদিন ভারতফেরত ১ জন রোগী সুস্থ হয়েছেন।

সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে জানা গেছে, বুধবার সকালে ৩ টি ল্যাব থেকে মোট ৯২ নমুনা পরীক্ষার ফলাফল পাঠানো হয়। এরমধ্যে আইইডিসিআর থেকে ২০ , খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের (খুমেক) ল্যাব থেকে ৪৪ ও যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (যবিপ্রবি)  জিনোম সেন্টার থেকে ২৮ জন নমুনা পরীক্ষার ফলাফল ছিলো। আইইডিসিআর ও খুমেক থেকে পাঠানো ৬৪ ফলাফলের সবগুলো নেগেটিভ শনাক্ত হয়। অর্থাৎ কারো শরীরে করোনাভাইরাসের জীবাণু মেলেনি। যবিপ্রবির জিনোম সেন্টার থেকে পাঠানো বাকি ২৮ নমুনা পরীক্ষার ফলাফলে ৬ জনের ফলাফল পজেটিভ এসেছে।

যবিপ্রবির এনএফটি বিভাগের চেয়ারম্যান ও পরীক্ষণ দলের সদস্য ড. শিরিন নিগার জানিয়েছেন, বুধবার সকালে ফলাফলের কপি সিভিল সার্জনের কাছে ই-মেইল করা হয়। সিভিল সার্জন অফিসের তথ্য কর্মকর্তা মেডিকেল অফিসার ডা. রেহেনেওয়াজ জানান বুধবার যশোর জেলার করোনা সন্দিগ্ধ আরো ৩৯ জনের নমুনা পরীক্ষার জন্য দুটি ল্যাবে পাঠানো হয়েছে। এরমধ্যে খুমেকে ৩১ ও যবিপ্রবিতে ৮ জনের নমুনা পাঠানো হয়।

যশোরের সিভিল সার্জন ডা. শেখ আবু শাহীন জানিয়েছেন, কোভিড-১৯ নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার পর যশোরে বুধবার আরও ১ জন সুস্থ হলেন। তার নাম প্রকাশ কুমার মন্ডল (২৮)। তার বাড়ি সাতক্ষীরায়। গত ২৩ এপ্রিল তিনি ভারত থেকে বেনাপোলে পৌঁছানোর পর নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য ল্যাবে পাঠানো হয়। ফলাফলে তার করোনা পজেটিভ হয়। সর্বশেষ ২০ মে ল্যাব থেকে পাঠানো ফলাফলে প্রকাশ মন্ডলের করোনা নেগেটিভ হয়।

উল্লেখ্য, বুধবার পর্যন্ত যশোর জেলায় মোট ৯৫ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এরমধ্যে যশোর সদর উপজেলায় ৩৬ জন, শার্শা উপজেলায় ৮ জন, ঝিকরগাছা উপজেলায় ৭ জন, চৌগাছা উপজেলায় ১৫ জন, কেশবপুর উপজেলায় ১৩ জন, মণিরামপুর উপজেলায় ৯ জন, বাঘারপাড়া উপজেলায় ৩ জন ও অভয়নগর উপজেলায় ৪ জন। সুস্থ হয়েছেন ৫২ জন।