চলে গেলেন ‘মহীনের ঘোড়াগুলি’র সওয়ার রঞ্জন ঘোষাল

স্পন্দন বিনোদন ডেস্ক : বাংলা গানের কিংবদন্তি এন্ড্রু কিশোরকে হারানোর বেদনা সজীব থাকতেই সঙ্গীতজগতে আবারও নক্ষত্রপতন ঘটলো। ওপার বাংলার ব্যান্ডদল ‘মহীনের ঘোড়াগুলি’র প্রতিষ্ঠাতা সদস্য রঞ্জন ঘোষাল আর নেই।

বৃহস্পতিবার (৯ জুলাই) ভোরে নিজের বেঙ্গালুরুর বাড়িতে ৬৫ বছর বয়সে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন রঞ্জন ঘোষাল। তিনি রেখে গেলেন স্ত্রী সঙ্গীতা ঘোষাল ও দুই পুত্রকে।

বাংলা সঙ্গীতজগতের দিনবদলের অন্যতম সাক্ষী ও পথিকৃৎ ছিলেন রঞ্জন ঘোষাল। তার হাত ধরেই তৈরি হয়েছিল বাংলা ব্যান্ড ‘মহীনের ঘোড়াগুলি’। মহীনের অ্যালবাম ‘সংবিগ্ন পাখিকুল’-এর ‘ভেসে আসে কলকাতা’, ‘সংবিগ্ন পাখিকুল’, ‘মেরুন সন্ধ্যালোক’ গানগুলো রঞ্জন ঘোষালেরই লেখা।

গৌতম চট্টোপাধ্যায়ের প্ৰথম ব্যান্ড সপ্তর্ষিতে অন্যতম সদস্য ছিলেন রঞ্জন। ১৯৭৫ নাগাদ ‘মহীনের ঘোড়াগুলি’ যখন প্রতিষ্ঠা হচ্ছে, রঞ্জন ঘোষাল তখন উপস্থাপক হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন। রঞ্জন ঘোষাল ছাড়াও ব্যান্ডের সদস্য ছিলেন তপেশ বন্দ্যোপাধ্যায়, তাপস দাস, আব্রাহাম মজুমদার, বিশ্বনাথ চট্টোপাধ্যায় ও প্রদীপ চট্টোপাধ্যায়।

রঞ্জন ঘোষালের জন্ম ১৯৫৫ সালে বর্ধমান জেলার মেমারিতে। যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং নিয়ে পড়াশোনার করেন তিনি। তার সঙ্গেই জড়িয়ে পড়েন সাংস্কৃতিক জগতের সঙ্গে। পরবর্তীতে মুম্বাইয়ের ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ইন্ডাস্ট্রিয়াল ইঞ্জিনিয়ারিং থেকে ‘শিল্প ব্যবস্থাপনা’ বিষয়ে পিএইচডিও করেন।

‘মহীনের ঘোড়াগুলি’র প্রতিষ্ঠা ও পরবর্তী দশকগুলোতে মহীনের জনপ্রিয়তা ধরে রাখতে বিশেষ ভূমিকা পালন করেছিলেন রঞ্জন ঘোষাল।