নির্ধারিত সব হাসপাতালে করোনার ফ্রি টেস্ট চেয়ে আইনি নোটিশ

স্পন্দন নিউজ ডেস্ক  : প্রত্যেক নাগরিককে বিনামূল্যে করোনা ভাইরাসের টেস্ট এবং বেসরকারি হাসপাতালগুলোর টেস্টে কোনো প্রকার দাম আরোপ না করার পদক্ষেপ নিতে লিগ্যাল নোটিশ পাঠিয়েছেন সুপ্রিমকোর্টের দুই আইনজীবী।

স্বাস্থ্য সচিব, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ডিজি এবং আইইডিসিআরের পরিচালকসহ ছয়জনের বরাবর রোববার (৩ মে) এ নোটিশ পাঠান আইনজীবী ব্যারিস্টার হুমায়ুন কবির পল্লব ও ব্যারিস্টার মোহাম্মদ কাউসার।

পরে হুমায়ুন কবির পল্লব বলেন, করোনা টেস্টের বাণিজ্যিকীকরণ প্রতিরোধে সাধারণ জনগণের জন্য বিনামূল্যে টেস্টের ব্যবস্থা করতে ল’ অ্যান্ড লাইফ ফাউন্ডেশনের পক্ষ থেকে ইমেইলের মাধ্যমে এ আইনি নোটিশ পাঠানো হয়।

তিনি বলেন, সরকার ইতোমধ্যে বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালগুলোকে করোনা টেস্টের অনুমতি দিয়েছে। সরকার টেস্টের জন্য মূল্যা নির্ধারণ করেছে তিন হাজার পাঁচশ টাকা। যেটা অত্যন্ত ব্যয়বহুল এবং সাধারণ মানুষকে উদ্বুদ্ধকরণের পরিবর্তে তাদের নিরুৎসাহিত করা হবে। যেহেতু করোনা একটি জাতীয় সমস্যা এবং বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে যত বেশি টেস্ট করা সম্ভব হবে অল্প সময়ে তত তাড়াতাড়ি এবং সঠিকভাবে এই করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে কার্যকরী পদক্ষেপ নেওয়া সম্ভব। কিন্তু একটি টেস্টের দাম যদি নির্ধারণ করা হয় ৩৫শ টাকা তাহলে আমাদের সাধারণ মানুষ টেস্টে আগ্রহী হবে না এবং বাণিজ্যিকীকরণ হবে টেস্ট নিয়ে।

ব্যারিস্টার পল্লব বলেন, এটি একটি বৈষম্যমূলক পদক্ষেপ। কারণ কিছু মানুষ বিনামূল্যে টেস্ট করতে পারবে আর কিছু মানুষকে ৩৫শ টাকায় টেস্ট করাতে হবে এবং বেসরকারি হাসপাতালগুলো এ বিষয়টি নিয়ে ব্যাপক বাণিজ্য করার সুযোগ পাবে যেটা অনাকাঙ্ক্ষিত এবং অপ্রত্যাশিত। ২৪ ঘণ্টার মধ্যে এ বিষয়ে পদক্ষেপ নেওয়ার কথা বলা হয়েছে। আর পদক্ষেপ না নিলে আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হবে।