লোহাগড়ায় ভাড়াটিয়াকে ধর্ষণের  অভিযোগে বাড়ি মালিকের ছেলে আটক

লোহাগড়া (নড়াইল) প্রতিনিধি  : নড়াইলের লোহাগড়ায় ভাড়াটিয়া গৃহবধূকে ধর্ষণের অভিযোগে বাড়ি মালিকের ছেলের বিরুদ্ধে থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ অভিযুক্তকে আটক করেছে ।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, নড়াইল সদর থানার চাকুলিয়া গ্রামের নিলু শেখের ছেলে ভাড়ার মোটরসাইকেল চালক নূরু শেখ  স্ত্রীকে নিয়ে লোহাগড়া পৌরসভার লক্ষীপাশা গ্রামে মুজিবর রহমানের বাড়িতে ভাড়াটিয়া হিসেবে বসবাস করত। গত শনিবার রাতে স্বামী নূরু বাসায় না থাকায় ফাঁকা পেয়ে বাড়ির মালিক মুজিবর রহমানের ছেলে সজিব শেখ (২৭) নূরুর স্ত্রীকে (২২) একা পেয়ে গলায় ছুরি ধরে ভয় দেখিয়ে ধর্ষণ করে এবং শরীরের বিভিন্ন জায়গায় কামড়িয়ে আহত করে। ধর্ষণের  বিষয়টি কাউকে না বলার জন্য ধর্ষক হুমকি দেয়। ধর্ষিতা চারদিন পর বিষয়টি তার স্বামীকে জানালে স্বামী নূরু শেখ গত বুধবার লোহাগড়া থানায় অভিযোগ করলে রাতেই পুলিশ সজিবকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে। বৃহস্পতিবার দুপুরে নড়াইল সদর হাসপাতালে ওই বধূকে ডাক্তারী পরীক্ষা করা হয়েছে। তিনি সাংবাদিকদের জানান, বাড়ির মালিকের ছেলে সজিব বেশকিছুদিন ধরে তাকে কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিল। লোকলজ্জার ভয়ে কাউকে ঘটনা বলেনি।

লোহাগড়া থানার ওসি সৈয়দ আশিকুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে  বলেন, অভিযুক্ত সজিবকে আটক করে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।