ঝিনাইদহে ১৫ হাজার অসচ্ছল পরিবার পেলো নগদ অর্থ ও কোরবানির মাংস


ঝিনাইদহ প্রতিনিধি:
প্রতি বছরের মত এবারও ঝিনাইদহের ১৫ হাজার অসচ্ছল পরিবারের মাঝে কোরবানির মাংস ও নগদ অর্থ বিতরণ করেছে জাহেদী ফাউন্ডেশন।
ফাউন্ডেশনের ঝিনাইদহ জেলা সমন্বয়ক তবিবুর রহমান লাবু জানান, এ বছরও জেলার বিভিন্ন গ্রামের ১৫ হাজার অসচ্ছল পরিবারকে কোরবানির মাংস ও নগদ টাকা দিয়েছেন প্রতিষ্ঠানটি। ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বেড়গোপিনাথপুর গ্রামের কিংশুক ইটভাটায় ঈদের পর দিন থেকে ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক নাসের শাহরিয়ার জাহেদী মহুলের সার্বিক তত্ত্বাবধানে এই মাংস বিতরণের কার্যক্রম শুরু হয়। এছাড়া পৌর এলাকার বিভিন্ন পাড়ায় ওয়ার্ড কাউন্সিলরদের মাধ্যমেও জাহেদী ফাউন্ডেশনের এই কোরবানির মাংস বিতরণ করা হয়। মাংস বিতরণ অনুষ্ঠানে তুরস্কের প্রতিনিধি মিঃ ফাতি এলমালি, মিঃ তাহাসিন ইয়াজান ও কাইয়ূম শাহরিয়ার জাহেদী হিজলসহ ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। অসচ্ছল পরিবারের সদস্য তহমিনা খাতুন জানান, তিনি প্রতি বছর দুই কেজি করে গরুর মাংস ও নগদ একশ টাকা পেয়ে থাকেন। এছাড়া পবিত্র ঈদুল ফিতরেও চাল, তেল ও ডালসহ বিভিন্ন সামগ্রী পেয়েছেন। সাধুহাটী ইউনিয়নের বাসিন্দা আব্দুল আলীম ও ইহছানুল হক জানান, এ বছর তারা দেড় কেজি গরুর মাংস ও নগদ একশ টাকা পেয়েছেন। সুরাট ইউনিয়নের লিয়াকত আলী ও হরিনাকুন্ডুর ভালকি গ্রামের ট্যাঙ্গর আলী, শহরের কলাবাগান পাড়ার রান্নু শাহ ও মাজেদা খাতুন জানান, তারা এবারের ঈদুল আজহায় মাংস ও নগদ টাকা পেয়ে পরিবার পরিজন নিয়ে বেজায় খুশি হয়ে ঈদ আনন্দ উপভোগ করেছেন। কার্ডপ্রাপ্তরা জানান, বছরের পর বছর জাহেদী ফাউন্ডেশন ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে হাজার হাজার পরিবারকে সহায়তা করে থাকে। এছাড়াও করোনা শুরু থেকেই জাহেদী ফাউন্ডেশন ঝিনাইদহ জেলার অসহায় মানুষসহ দেশের বিভিন্ন জেলার মানুষের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ অব্যাহত রেখেছেন। পাশাপাশি ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল সহ স্বাস্থ্য বিভাগের নিকট রেডিয়েন্ট ফার্মাসিউটিক্যালস্ লিমিটেডের পক্ষ থেকে স্বাস্থ্য সুরক্ষা সামগ্রী প্রদান করা হয়েছে। শত শত কোটি কোটি টাকা ব্যায়ে স্কুল, মাদ্রাসা, মসজিদ, খেলাধুলা ও স্বাস্থ্যসেবা উন্নয়নে অসংখ্য প্রতিষ্ঠান ও ব্যক্তির মাঝে জাহেদী ফাউন্ডেশন নীরবে নিভৃতে সেবামূলক কর্মকান্ড অব্যাহত রেখেছেন।