ফুটপাত থেকে নবজাতকের মরদেহ তুলে  নিজহাতে দাফন করলেন মেয়র

কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি  : রাত বাজে সাড়ে ১০ টা। শহর তখনো ছিলো জমজমাট। এ সময় পথচারীদের নজরে আসে কালীগঞ্জ শহরের মধুগঞ্জ বাজার রোডে বাপ্পি বস্ত্রালয়ের সামনে ফুটপাতে পড়ে আছে ফুটফুটে চেহারার এক নবজাতকের মরদেহ। খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে ছুটে যান কালীগঞ্জ পৌরসভার মেয়র আশরাফুল আলম আশরাফ। একটু পরে সেখানে আসেন থানা পুলিশের সদস্যরাও। নবজাতকটির অর্ধেক মাথা ও বাম হাতটি ছিন্ন ছিল।

পৌর মেয়র উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শিবলি নোমানী ও ছাত্রলীগ নেতা মিঠু মালিথাকে ডেকে নিয়ে নিজ হাতেই কাফন পরিয়ে আড়পাড়া পৌর কবরাস্থানে দাফন করেন শিশুটিকে।

কালীগঞ্জ থানার এসআই রিফাত ইমরান জানান, রাতে কে বা কারা এক নবজাতকের লাশ শহরের ফুটপাতে ফেলে যায়। ঘটনাস্থলে গিয়ে তিনি দেখেছেন নবজাতকটির মাথায় ক্ষত। আর বাম হাতটি সম্পূর্ণ ছিন্ন। এমন অবস্থায় পৌর মেয়র শিশুটিকে কাফন পরিয়ে দাফনের ব্যবস্থা করেন। তিনি বলেন, কেউ শহরের কোথাও অবৈধ গর্ভপাত ঘটিয়ে ফুটপাতে ফেলে গেছে বলে পুলিশ ধারনা করছে। তারা খোঁজ খবর নিচ্ছেন। থানায় একটি জিডি করা হয়েছে।

পৌর মেয়র আশরাফ জানান, আমি যা করেছি একজন মানুষ হিসেবে করেছি। ফুটপাতে নবজাতক পড়ে থাকার বিষয়টি দুঃখজনক।