ই-পেপার ফটোগ্যালারি আর্কাইভ বৃহস্পতিবার, ২৯ জুলাই , ২০২১ ● ১৪ শ্রাবণ ১৪২৮

বাঘারপাড়ায় লকডাউনে চলছে চোর-পুলিশের খেলা

Published : Sunday 20-June-2021 22:07:08 pm
এখন সময়: বৃহস্পতিবার, ২৯ জুলাই , ২০২১ ২৩:৩৪:০৭ pm

বাঘারপাড়া (পৌর)প্রতিনিধি:  যশোরের বাঘারপাড়ায় অনেকেই মানছে না কঠোর বিধিনিষেধ। রোববার লকডাউনের ২য় দিনে মানুষের চলাচল থেকে শুরু করে সকল ব্যবসা বাণিজ্য স্বাভাবিক দিনের মতই চলেছে। বাঘারপাড়া উপজেলা সদরের বাজার, নারিকেলবাড়িয়া ও খাজুরা বাজার এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, পূর্বের মতোই চলছে সব, তবে আছে কিছু ব্যতিক্রম। অধিকাংশ দোকানপাটের অর্ধেক অংশ খোলা রেখে চলছে বেচাকেনা।

অনেকের মুখে নেই মাস্ক, নেই সামাজিক দূরত্বের কোনো বালাই। বাজারে কমেনি মানুষের ভিড়। প্রশাসনের কর্মকর্তারা আসছে কি না দেখার জন্য দোকানের সামনে বা গলির মুখে একজনকে দায়িত্বে রাখা হয়েছে। প্রশাসন বা পুলিশের কেউ আসলেই সঙ্গে সঙ্গে দোকানগুলো বন্ধ করা হচ্ছে। কিছুক্ষণ পর প্রশাসন বা পুলিশের লোকজন চলে গেলে আবার খোলা হচ্ছে দোকানের অর্ধেক অংশ। দোকান খোলা আর বন্ধের এমন অবস্থাকে অনেকেই রসিকতা করে ‘চোর-পুলিশ খেলা’ বলছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন কাপড় ব্যবসায়ী জানান, আমি একা দোকান বন্ধ রাখলে কি হবে। অনেকেই দোকানের শার্টার অর্ধেক খোলা রেখে তাদের ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছেন। তাই আমিও করতে বাধ্য হচ্ছি। কারণ আমার তো বাড়িতে বৌ-বাচ্চা আছে। তাদের খাওয়াবো কি?

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জুতা ব্যবসায়ী বলেন, সবাই কম বেশি চুরি করে হলেও অর্ধেক শার্টার খুলে তাদের ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছেন। তাই আমিও করছি। আমার আয়ের একমাত্র উৎস এই দোকান। আমার পরিবারে ৬ জন সদস্য। তাদের খাওয়া-দাওয়াসহ সব চাহিদা আমার একার আয়ের ওপর। তাছাড়া আছে এনজিও’র কিস্তি। রাত পোহালে আমার কিস্তি রয়েছে ১২’শ টাকা। কিভাবে কি করবো? ইচ্ছা নয় পরিস্থিতির শিকার হয়ে খুলতে হচ্ছে দোকান।

বাঘারপাড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. শরিফুল ইসলাম জানান, বাঘারপাড়ায় বর্তমানে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা দিন দিন বেড়েই চলেছে। কিন্তু মানুষের মাঝে সচেতনতা নেই। গত ৪ দিনের ব্যবধানে উপজেলার নারিকেলবাড়িয়া ১ জন এবং খাজুরায় ১ জন মারা গেছেন। বর্তমানে উপজেলায় মোট করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ৪৪ জন এবং ভর্তি আছেন ৫ জন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা তানিয়া আফরোজ জানান, এ উপজেলার অধিকাংশ মানুষের সচেতনতার অভাবে দিন দিন করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাচ্ছে। এই আশঙ্কা মোকাবেলায় ১৯ জুন থেকে ২৫ জুন পর্যন্ত বাঘারপাড়ার পৌর এলাকা, খাজুরা বাজার ও নারিকেলবাড়িয়া এলাকায় কঠোর বিধি-নিষেধ জারি করে লকডউন ঘোষণা করা হয়েছে। এই বিধি নিষেধ না মানলে আইনের আওতায় এনে শাস্তির ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 



আরও খবর