শৈলকুপায় ভোটের জেরে আরও একজনকে কুপিয়ে হত্যা

এখন সময়: বুধবার, ৫ অক্টোবর , ২০২২ ২০:৪৯:৩৩ pm

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি: ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার সারুটিয়া ইউনিয়নে নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতায় আরও এক যুবককে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে।

শুক্রবার রাতে সারুটিয়া গ্রামে মেহেদী হাসান স্বপনকে (৩০) দুর্বৃত্তরা কুপিয়ে হত্যা করে বলে জানিয়েছেন শৈলকুপা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মহসিন আলী।

স্বপন সারুটিয়া গ্রামের দবির শেখের ছেলে।

পরিদর্শক আরও বলেন, “সারুটিয়া গ্রামে একজন নিহত হওয়ার খবর পেয়ে সেখানে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। গ্রামে পুলিশ মোতায়েন আছে।”

এর আগে সারুটিয়া ইউনিয়নে নির্বাচনী সহিংসতায় আরও চারজন নিহত হয়েছে।

৫ জানুয়ারি পঞ্চম ধাপে সারুটিয়া ইউনিয়ন পরিষদে নির্বাচন হয়। এতে আওয়ামী লীগের প্রার্থী মাহমুদুল হাসান মামুন বিজয়ী হন। তার প্রধান প্রতিদ্ব›দ্বী ছিলেন জুলফিকার কায়ছার টিপু।

নিহত স্বপনের বোন পপি অভিযোগ করে বলেন, ইউপি নির্বাচনে তারা নৌকার পক্ষে ভোট দেন। কিন্তু সারুটিয়া গ্রামে নৌকা কাঙ্ক্ষিত ভোট পায়নি। ফলে তাদের দোষারূপ করা হয়। এর জেরেই তার ভাইকে হত্যা করা হয়েছে।    

তিনি আরও বলেন, “নির্বাচনের সময় থেকেই দুই পক্ষের দ্ব›েদ্বর জেরে স্বপন বাড়ি থাকত না। শুক্রবার রাতে সে বাড়ি আসে। রাত সাড়ে ৯টার দিকে মোবাইল ফোনে তাকে ডেকে নিয়ে যাওয়া হয়। তারপর বাড়ি থেকে একটু দূরে তাকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে জখম করে ফেলে রেখে যায় দুর্বৃত্তরা।”

পরিবারের লোকজন স্বপনকে উদ্ধার করে শৈলকুপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে ফরিদপুরে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাতেই তিনি মারা যান বলে জানান বোন পপি।

এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে শনিবার সকালে মাহমুদুল হাসান মামুন বলেন, “আমি এখন নিহত স্বপনের বাড়িতে আছি। পরে এ ব্যাপারে কথা বলব।”

এ সময় তিনি এ ঘটনার সঙ্গে নিজের সম্পৃক্ততা অস্বীকার করেন।