শার্শায় বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা গোল্ডকাপ ফুটবলে পুরস্কার তুলে দিলেন এমপি শেখ আফিল

এখন সময়: শুক্রবার, ১৯ জুলাই , ২০২৪, ০২:০৩:০৮ এম

শেখ কাজিম উদ্দিন, বেনাপোল : যশোরের শার্শায় বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ প্রাথমিক বিদ্যালয় ফুটবল টুর্নামেন্ট এবং বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব গোল্ডকাপ প্রাথমিক বিদ্যালয় ফুটবল টুর্নামেন্ট-২০২৪ অনুষ্ঠিত হয়েছে।
শনিবার বেলা ৩টায় শার্শার শ্যামলাগাছী প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ’ প্রাথমিক বিদ্যালয় ফুটবল টুর্ণামেন্টে অংশগ্রহণকারী গোড়পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও লক্ষণপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় হাড্ডাহাড্ডি লড়াই শেষে ট্রাইব্রেকারের মাধ্যমে ৩-১ গোলে বিজয়ী গোড়পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। এ খেলার সর্বোচ্চ গোলদাতা ও ম্যান অব দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত হয় গোড়পাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী খেলোয়াড় সাকিব খান।
অপরদিকে, বঙ্গমাতা ফজিলাতুন্নেছা মুজিব গোল্ডকাপ প্রাথমিক বিদ্যালয় ফুটবল টুর্নামেন্টে অংশগ্রহণকারী কায়বা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও শুড়ারঘোপ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে ১-০ গোলে বিজয়ী কায়বা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। এ খেলার সর্ব্বোচ্চ গোলদাতা কায়বা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী খেলোয়াড় শরিফা খাতুন ও ম্যান অব দ্যা ম্যাচ নির্বাচিত হয় একই স্কুলের শিক্ষার্থী তাছলিমা খাতুন।
শার্শা উপজেলা শিক্ষা অফিসের আয়োজনে অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে খেলা উপভোগ শেষে সন্ধ্যার সময় বিজয়ী খেলোয়াড়দের মাঝে পুরস্কার তুলে দেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব শেখ আফিল উদ্দিন।
শার্শা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নয়ন কুমার রাজবংশীর সভাপতিত্বে¡ ও প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা ওলিয়ার রহমানের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত এ সকল টুর্নামেন্টে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শার্শা উপজেলা চেয়ারম্যান সোহরাব হোসেন, শার্শা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শেখ মনিরুজ্জামান, পোর্ট থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুমন ভক্ত, শার্শা উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুর রহিম সরদার, সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মেহেদী হাসান, শার্শা সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কবির উদ্দিন আহমেদ তোতা, বাহাদুরপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মফিজুর রহমান, শার্শা উপজেলা শিক্ষক সমিতির সভাপতি ইজজত আলী, সাধারণ সম্পাদক ওসমান গণি মুকুলসহ উপজেলার সর্বমোট ১২৫টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষিকা ও সুধীবৃন্দ।