দুর্গোৎসব উপলক্ষে শার্শার ২৯ পূজামণ্ডপে নগদ অর্থ দিলেন এমপি শেখ আফিল উদ্দিন

এখন সময়: বুধবার, ৭ ডিসেম্বর , ২০২২ ১০:৩৬:২০ am

শেখ কাজিম উদ্দিন, বেনাপোল : সার্বজনীন দুর্গোৎসব উপলক্ষে শার্শা উপজেলার সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সাথে মতবিনিময় সভা করেছেন যশোর-১ (শার্শা ) আসনের এমপি আলহাজ শেখ আফিল উদ্দিন।

সোমবার বেলা ১১ টায় শার্শা উপজেলা কমপ্লেক্স অডিটোরিয়ামে আয়োজিত এ সভায় উপজেলার ২৯টি মন্ডপের পূজা কমিটির নেতৃবৃন্দের হাতে তিনি সরকারি এবং ব্যক্তিগত তহবিল থেকে নগদ অর্থ প্রদান করেন।

শার্শা উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নারায়ন চন্দ্র পাল এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় তিনি সনাতন ধর্মাবলম্বীদের মাঝে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শুভেচ্ছা বার্তা পৌঁছে দেন।

এমপি আফিল উদ্দিন বলেন, প্রতিবছর ঢাক ঢোল আর কাঁসর বাজিয়ে যখন শারদীয় দূর্গাপূজার শুভাগমন হয় তখন এদেশের স্বাধীনতা বিরোধী অপশক্তিরা অগ্নিমূর্তি ধারণ করে। ওরা নানাভাবে ভৎর্সনা করে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের। সাথে উস্কানিসহ প্রতিমা ভাঙচুর করে আর দেশকে ঠেলে দিতে চায় অশান্তির দিকে। তাই, ওদের সাথে কোন ধরণের আপোষ নই, যখনই আঘাত করতে আসবে তখনই ঐক্যবদ্ধভাবে প্রতিহত করতে হবে।

এসময় সাংসদ শেখ আফিল উদ্দিন আরো বলেন, আসছে জাতীয় নির্বাচন। তাই, এখনই আপনাদেরকে সজাগ থেকে সার্বজনীন দুর্গোৎসব পালন করতে হবে। সেই সাথে নির্বাচনকে কেন্দ্র করে স্বাধীনতা বিরোধী শক্তিরা যাতে পূজায় কোনভাবে ক্ষয়ক্ষতি করতে না পারে সেজন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দক্ষ নেতৃত্বে আইন শৃঙ্খলা বাহিনী সজাগ রয়েছে। সম্প্রীতির বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠিত রাখতে প্রতিটি পূজা মন্ডপ থাকবে আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর নিরাপত্তার চাদরে বেষ্টিত। এসাথে আওয়ামী লীগসহ সকল সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা সনাতন ধর্মাবলম্বীদের পাশে থাকবে নিবেদিত প্রাণ।

এ সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন শার্শা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল হক মঞ্জু।

মতবিনিময় সভায় উপস্থিত ছিলেন শার্শা উপজেলা পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি বৈদ্যনাথ দাস, সাধারণ সম্পাদক নীল কমল সিংহ, সাংস্কৃতিক সম্পাদক অশোক কুমার ঘোষ, উপজেলা হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রীস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি জয়দেব কুমার সিংহ, সাধারণ সম্পাদক উত্তম কুমার বিশ্বাষ, বেনাপোল পৌর পূজা উদযাপন কমিটির সভাপতি শান্তিপদ গাঙ্গুলি, সাধারণ সম্পাদক উজ্জল কুমার বিশ^াসসহ উপজেলার সকল প্রান্তের সনাতন ধর্মাবলম্বীরা।